ঢাকা, শনিবার 15 November 2014 ১ অগ্রহায়ন ১৪২১, ২১ মহররম ১৪৩৬ হিজরী
Online Edition

বেগমগঞ্জে আওয়ামীলীগের সড়ক অবরোধ অগ্নিসংযোগ, দুর্ভোগে সাধারণ যাত্রীরা

নোয়াখালী সংবাদদাতা: ঢাকা- চট্রগ্রাম-নোয়াখালী মহাসড়কের চৌমুহনী চৌরাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ করে নোয়াখালী-২ (বেগমগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য ও বেগমগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ মামুনুর রশিদ কিরনের সমর্থকরা। এতে চরম দূর্ভোগে পড়েন রোগীসহ হাজার হাজার যাত্রীরা। সরেজমিনে দেখা যায় সবাই পায়ে হেটে নিজস্ব গন্তব্যে ছুটছেন। জেলা শহর মাইজদীর জিলা স্কুল ময়দানে অনুষ্ঠিত জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে নেতাকর্মীদের প্রবেশে বাধাসহ বিভিন্ন হয়রানির অভিযোগ এনে তারা শনিবার দুপুর দেড়টা থেকে অবরোধ শুরু করে।  প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, জেলা শহর মাইজদীর জিলা স্কুল ময়দানে অনুষ্ঠিত জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী আলহাজ মামুনুর রশিদ কিরনের সমর্থকরা প্রবেশের সময় দলীয় নেতাকর্মীরা বাধা দেন। এসময়  প্রতিবাদ করতে গেলে তাদের বিভিন্নভাবে লাঞ্চিত করা হয়। এ ঘটনায় তারা ক্ষিপ্ত হয়ে দুপুর দেড়টা থেকে সড়কে অবস্থান নিয়ে, ইটপেলে, গাছের গুঁড়ি ও টায়ারে আগুন দিয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম-নোয়াখালী মহাসড়কের চৌমুহনী চৌরাস্তা অবরোধ করে। এসময় কয়েকটি গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনাও ঘটে। সড়কের উভয়পাশে যানজটের সৃষ্টি হয়ে অনেক গাড়ি আটকা পড়ে। দুর্ভোগে পড়েছেন এ রুটে চলাচলকারী যাত্রীরা। চৌমুহনী হয়ে আসা চট্রগ্রাম অঞ্চলের কয়েক শতাধিক গাড়ি আটকা পড়ে।  ঢাকা ও কুমিল্লার সাথে সড়ক যোগাযোগ ব্যাহত হয়। এক সিএনজি চালক ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আওয়ামীলীগের অবরোধের জন্য এখন পর্যন্ত কোনো ভাড়া পাইনি। কিভাবে মালিকের জমা দিব। এর পরে পরিবারের বাজার সদাই করব। এরআগে আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী মামুনুর রশিদ কিরন নানা অভিযোগ এনে সম্মেলনের কাউন্সিল অধিবেশন প্রত্যাখান করেন। জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) মো. ইলিয়াছ শরীফ জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।  পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চলছে।



অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ