ঢাকা, বৃহস্পতিবার 25 April 2019, ১২ বৈশাখ ১৪২৬, ১৮ শাবান ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

নেপালে বাস নদীতে পড়ে ২৪ জনের মৃত্যুর আশঙ্কা

সংগ্রাম ডেস্ক: নেপালের পশ্চিমাঞ্চলীয় পাবর্ত্য এলাকায় বৃহস্পতিবার একটি যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নদীতে পড়ে গেলে অন্তত ২৪ জনের প্রাণহানির আশঙ্কা করা হচ্ছে। এই ঘটনায় জীবিতদের সন্ধানে তল্লাশী অভিযান চলছে।

পুলিশ কর্মকর্তা শের বাহাদুর চৌধুরী বলেন , ৪৫ জন যাত্রী নিয়ে বাসটি আজ সকালে জাজারকোট এলাকার একটি সরু রাস্তায় বাঁক নেয়ার সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

তিনি এএফপিকে বলেন, ‘এই ঘটনায় অন্তত ২৪ জনের প্রাণহানির আশঙ্কা করা হচ্ছে।’

জাজারকোটের পুলিশ প্রধান দীনেশ রাজ মাইনালি বলেন, বাসটি সম্পূর্ণ ডুবে গেছে। ডুবুরীরা ভেরি নদীতে যাত্রীদের খোঁজে তল্লাশী চালাচ্ছে। পুলিশ কর্মকর্তারা তীরে সন্ধান চালাচ্ছেন।

তিনি ঘটনাস্থল থেকে বলেন, ‘এই ঘটনায় দুই শিশুসহ পাঁচ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।’

তিনি আরো জানান, পুলিশ আহত অবস্থায় ৫ জনকে উদ্ধার করে নিকটস্থ হাসপাতালে নিয়ে গেছে।

পুলিশ কর্মকর্তা শের বাহাদুর বলেন, দেশের বিভিন্ন রুটের বাস চালকরা প্রায়ই নিয়ম বহির্ভূতভাবে রাস্তা থেকে অতিরিক্ত যাত্রী তুলে থাকে। তাই যাত্রী তালিকায় যতজন রয়েছে বাস্তবে তার চেয়েও বেশি সংখ্যক লোক বাসটিতে ভ্রমণ করে থাকতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বেপরোয়াভাবে গাড়ি চালানো, ঠিকভাবে যানবাহনের রক্ষণাবেক্ষণ না করা ও খারাপ রাস্তা-ঘাটের কারণে নেপালে প্রায়ই সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে। চলতি মাসে নেপালের মধ্যাঞ্চলের একটি জাতীয় মহাসড়কে দুটি বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে এক রুশ নারীসহ অন্তত ১০ জন প্রাণ হারায়।

গত মাসে কাঠমা-ুর বাইরে একটি যাত্রীবাহী বাস পাহাড় থেকে নিচে পড়ে ইসরাইলের দুই নাগরিকসহ অন্তত ১৪ জনের মৃত্যু হয়।

সূত্র: বাসস

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ