ঢাকা, বুধবার 19 September 2018, ৪ আশ্বিন ১৪২৫, ৮ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

৪ বাজারে ১৫টি দোকান, বসতবাড়িতে স্বর্ণালংকার ও টাকা লুট: আহত ৩ মিরসরাইয়ে গণডাকাতি : জনমনে আতঙ্ক

মিরসরাই(চট্টগ্রাম )সংবাদদাতা-মিরসরাইয়ে গণডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। শুক্রবার গভীর রাতে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় গণডাকাতিতে ৪টি বাজারের ১৫টি দোকানে, একটি বসতবাড়িতে ১০ ভরি স্বর্ণালংকার ও নগদ ৩০ হাজার টাকা লুট হয়েছে। মিরসরাই উপজেলা পৌর সদর থেকে মিঠানালা ইউনিয়নের সাধুর বাজার পর্যন্ত একই রুটে ৪টি বাজারে গনডাকাতি ঘটায় জনমনে ডাকাত আতংক বিরাজ করছে। ডাকাতদের হামলায় আহত হয়েছেন - আবুল খায়ের (৬০), জসীম উদ্দিন (৩৫) , তুহিনা সুলতানা (১০)।১০নম্বর মিঠানালা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু তাহের ভূঁইয়া জানান, শুক্রবার রাত ২টার দিকে ১০/১৫ জনের অস্ত্রধারী ডাকাত সুফিয়া গ্রামের তফাদার বাড়ীতে জসীম উদ্দিনের বসতঘরে হানা দেয়। রাতে তার বৃদ্ধ পিতা আবুল খায়ের (৬০) প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হয়।  এ সুযোগে ডাকাতদল আবুল খায়েরকে পিটাতে থাকে। এসময় পিতার আর্তচিৎকারে জসীম উদ্দিন ঘর থেকে বের হলে ডাতাকরা দুজনকে  দড়ি দিয়ে বেঁধে ফেলে।সশস্ত্র ডাকাতরা ঘরে প্রবেশ করে জসীম উদ্দিনের সহোদর মহি উদ্দিনের স্ত্রী মরিয়ম বেগম লিপিকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে রাখে। এসব দেখে জসীম উদ্দিনের মেয়ে সুফিয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সমাপনী পরীক্ষার্থী তুহিনা সুলতানা এদিকে ওদিক ছুটোছুটি করতে থাকে। ডাকাতদের বেদড়ক পিটুনীতে তুহিনা সুলতানাও আহত হয়। তিনি আরো জানান, ডাকাতদল জসীম উদ্দিনের ঘর থেকে ১২ ভরি স্বর্ণালঙ্কার, নগদ ৩০ হাজার টাকা ও ১টি মোবাইল সেট লুট করে নিয়ে গেছে।ইউপি সদস্য মোহাম্মদ নাজিম জানান, একই ইউনিয়নের সাধুরবাজারে সবুজের কম্পিউটারের দোকান, সোহরাবের রড সিমেন্টের দোকান, আব্দুল হাইয়ের হার্ডওয়ারের দোকান, ডাঃ আবছারের ফার্মেসী এবং শাহাদাত হোসেনের স্টেশনারী দোকানে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এসময় ডাকাতদল তালা ভেঙ্গে সবুজের কম্পিউটারের দোকান থেকে ২টি ডিজিটাল ক্যামেরা সহ অন্যান্য দোকানগুলো থেকে নগদ প্রায় ২০ হাজার টাকা লুট করে নিয়েছে। তিনি আরো জানান, গত বুধবার রাতে বানাতলী এলাকায় প্রবাসী বিন্দু মিয়া মেস্ত্রী  বাড়ির প্রবাসী নুরজামানকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ৩ ভরি সোনা ও নগদ ৪৯ হাজার টাকা নিয়ে যায় দুর্ধর্ষ ডাকাতরা। মিরসরাই পৌরসভার মেয়র এম শাহাজাহান বলেন, শুক্রবার রাতে চাঁদপুর-গোভানীয়া সড়কের (উপজেলা কোর্ট রোড) নাজিরপাড়া, তিতা বটগাছ তল ও কালা মিয়ার দোকান এলাকার ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। অন্তত ১০টি দোকানে তালা ভেঙ্গে নগদটাকা ও মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে যায়।  এ ব্যাপারে জানতে মিরসরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইমতিয়াজ এমকে ভূঁইয়ার কাছে জানতে ফোন করলে তিনি ব্যস্ততার অজুহাতে কোন কথা বলতে রাজি হননি।এ প্রসঙ্গে সীতাকুন্ড এসসি সার্কেল সালা উদ্দিন শিকদার বলেন, ডাকাতির ঘটনা শুনেছি। এখনো সুদির্ষ্টি কেউ অভিযোগ দেয় নাই। তবে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে পুলিশের তৎপরতা অব্যাহত থাকবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ