ঢাকা,বৃহস্পতিবার 15 November 2018, ১ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

সরকারের সবুজ সংকেতেই লতিফ দেশে ফিরেছেন : ফখরুল

স্টাফ রিপোর্টার : লতিফ সিদ্দিকীকে নিয়ে সরকার রাজনৈতিক খেলা খেলছে বলে মনে করে বিএনপি। রাজনৈতিক উদ্দেশে সরকারের সবুজ সংকেত পেয়েই লতিফ সিদ্দিকী দেশে ফিরেছেন বলেও মনে করেন বিএনপি নেতৃবৃন্দ। আজ বেলা ১২টায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সাংবাদিক সম্মেলনে নেতৃবৃন্দ উপরোক্ত মন্তব্য করেন।

সাংবাদিতক সম্মেলনে দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, সরকার ধর্মপ্রাণ মানুষকে উস্কে দিয়ে দেশে জঙ্গিবাদের উত্থান ঘটেছে বলে অপপ্রচার চালাতে চায় আবার আন্দোলন দমন করে প্রমাণ করতে চাইবে যে তারাই জঙ্গি দমনে সক্ষম।

তিনি মনে করেন, সরকার অশুভ রাজনৈতিক উদ্দেশে দেশকে রাজনৈতিক জঙ্গিরাষ্ট্রে পরিণত করতে চায়। আর দেশে জঙ্গিবাদের উত্থান ঘটছে প্রমাণ করার জন্য সরকার লতিফ সিদ্দিকীদের দিয়ে ধর্মপ্রাণ মানুষকে উস্কে দিচ্ছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, যখনই কোন বিদেশী অতিথি দেশে আসেন তখনই সরকার জনগণকে উস্কে দিয়ে জঙ্গিবাদ ইস্যুটিকে বড় করে দেখাতে চায় এবং অপচ্রচার শুরু করে। সরকারের একটাই উদ্দেশ্য, আর তা হল দেশকে জঙ্গিবাদী রাষ্ট্র হিসেবে চিত্রিত করা।

ফখরুল বলেন, সরকারই নিজেদের স্বার্থে দেশকে জঙ্গিবাদী রাষ্ট্র পরিণত করতে চায়। আস সেকারণেই সরকারেরর সবুজ সংকেত পেয়েই মানুষের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত প্রদানকারী,  হজ্ব নিয়ে কটুক্তকারী লতিফ সিদ্দিকী দেশে ফিরেছেন। অথচ তাকে গ্রেফতার করা হচ্ছে না।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আমাদের এমপিদের গ্রেফতার করতে কোন গ্রেফতারী পরওয়ানার প্রয়োজন হয় না, অথচ সাম্প্রদায়িক উস্কানিদাতা লতিফ সিদ্দিকীকে গ্রেফতার করতে গ্রেফতারী পরওয়ানার প্রয়োজন হয়।

তিনি বলেন, লতিফ সিদ্দিকীকে নিয়ে সরকার নিজেই ধূম্রজাল সৃষ্টি করেছে। অথচ পুলিশের নজরদারীতেই লতিফকে বাসায় পৌঁছে দেয়া হয়েছে। তিনি আরো বলেন,  গোয়েন্দা সংস্থাসমূহ গত ৯ তারিখে আগেই জানিয়ে দিয়েছিল যে লতিফ সিদ্দিকী দেশে ফিরে আসবেন। সরকারেরর সবুজ সংকেত পেয়েই তিনি দেশে ফিরেছেন। অথচ এখন বলছে তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। তিনি অবিলম্বে রহস্যের অবসান ঘটিয়ে সাম্প্রদায়িক উস্কানিদাতা লতিফ সিদ্দিকীকে গ্রেফতারের দাবী জানান। সেই সাথে ধর্ম নিয়ে হীন রাজনৈতিক খেলা বন্ধ করারও আহবান জানান।
সাংবাদিক সম্মেলনে দলের যুগ্ম মহাসচিব সালাউদ্দিন আহমেদ এবং সহ দপ্তর সম্পাদক আব্দুল লতিফ জনিও উপস্থিত ছিলেন।
আ.হু/সংগ্রাম

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ