ঢাকা, বৃহস্পতিবার 11 December 2014 ২৭ অগ্রহায়ন ১৪২১, ১৭ সফর ১৪৩৬ হিজরী
Online Edition

ভারতে ২০০ মুসলিমকে ‘গণধর্মান্তর’ পার্লামেন্টে হইচই

ভারতের আগ্রা শহরে ২০০ মুসলিমকে হিন্দু ধর্মে গণধর্মান্তর করানো হয়েছে- এমন এক খবর সংবাদমাধ্যমে বেরুনোর পর তা নিয়ে আজ ভারতের পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ লোকসভার অধিবেশনে তুমুল হইচই হয়েছে। বিবিসি বাংলা।
ক্ষমতাসীন বিজেপি নেতৃত্বাধীন সরকারের কাছে এ ঘটনার ব্যাপারে ব্যাখ্যা দাবি করেছে কংগ্রেস, কমিউনিস্ট পার্টি এবং সমাজবাদী পার্টির মতো বিরোধীদলগুলোর নেতারা। তারা এ ব্যাপার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ব্যাখ্যা দাবি করেন। এ ব্যাপারে একটি এফআইআর-ও করাও হয়েছে পুলিশের কাছে।
অভিযোগে বলা হয়, আগ্রার একটি বস্তির ৫০টি পরিবারের প্রায় ২০০ লোককে উগ্র হিন্দু সংগঠন রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘ বা আরএসএস-সংশ্লিষ্ট লোকেরা দরিদ্রদের রেশন কার্ড দেয়ার কর্মসূচিতে অংশ নেয়ার কথা বলে একটি মাঠে নিয়ে যায়।
কিন্তু যাবার পর সেখানে যজ্ঞ এবং প্রায়শ্চিত্ত করিয়ে তাদের হিন্দুধর্মে ধর্মান্তর করানো হয়। ধর্মান্তরিত লোকেরা বলেছে, অনেক লোকের ভিডিও দেখে তারা ভয় পেয়ে এর কোন প্রতিবাদ করতে পারেনি।
আরএসএস, বজরঙ্গ দল এবং বিশ্বহিন্দু পরিষদের মতো উগ্র হিন্দু সংগঠনগুলো এ ধরনের কর্মসূচিকে ঘর ওয়াপসি, অর্থাৎ তাদের ভাষায় ভারতের আদি বাসিন্দাদের মধ্যে যারা বিপথগামী হয়ে অন্যধর্মে চলে গিয়েছিল তাদের ঘরে ফিরিয়ে আনার কর্মসূচি বলে অভিহিত করে থাকে।
আগামী ২৫ ডিসেম্বর একই ধরনের অনুষ্ঠান করে আরও কিছু খ্রিস্টান ও মুসলিমকে ধর্মান্তরিত করার পরিকল্পনা ছিল বলেও সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ