ঢাকা, বুধবার 26 September 2018, ১১ আশ্বিন ১৪২৫, ১৫ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

নিখোঁজ বিমানের ধ্বংসস্তূপ পাওয়া গেছে, ৪০টি লাশ উদ্ধার

জাকার্তা: নিখোঁজ এয়ার এশিয়া বিমানের ৪০ আরোহীর লাশ সমুদ্র থেকে উদ্ধার করা হযেছে। ইন্দোনেশিয়ার নৌবাহিনীর বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা এএফপি এ তথ্য জানিয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে সুরাবায়ার কাছে ছয়টি লাশের সন্ধান পাওয়া যায়। এর আগে নিখোঁজ বিমানের ধ্বংসাবশেষের সন্ধান পাওয়া গেছে বলে জানায় ইন্দোনেশিয়া কর্তৃপক্ষ। কর্তৃপক্ষ বলছে, “কালিমন্তন উপকূলে বিমানের ধ্বংসাবশেষে দেখা গেছে। এটি নিখোঁজ এয়ার এশিয়া বিমানের ধ্বংসাবশেষ হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।”

বিমান থেকে চালানো অনুসন্ধানে বিমানের দরজাসহ অন্যান্য আলামত সমুদ্রে ভাসছে বলে দাবি করেছেন অনুসন্ধানকারীরা। অনুসন্ধান বিমানে থাকা এএফপির এক ফটো সাংবাদিক বলেন, “সমুদ্রে লাইফ জ্যাকেট, কমলা রঙের টিউব ও অন্যান্য জিনিস ভেসে থাকতে দেখেছি।”

ইন্দোনেশীয় বিমান কর্মকর্তা এগুয়িস দুয়ি পুরতেনদো বলেন, “আমরা দশটি বড় বস্তু শনাক্ত করতে পেরেছি। এছাড়া ছোট ছোট অন্যান্য জিনিসও রয়েছে। এগুলোর কোনো ছবি তোলা সম্ভব হয়নি।”

গত রোববার ইন্দোনেশিায় থেকে এয়ার এশিয়ার একটি বিমান ১৬২ যাত্রী নিয়ে জাভা সাগরে নিখোঁজ হয়ে যায়। বিমানটি সিঙ্গাপুর যাচ্ছিল। পাইলটের সঙ্গে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ার আগে তাকে খারাপ আবহাওয়া এড়িয়ে চলার নির্দেশ দেয়া হয়েছিল। জাভা সাগরে নিখোঁজ বিমানের অনুসন্ধানে যোগ দিয়েছে আমেরিকা, ফ্রান্স ও অস্ট্রেলিয়া।

ইন্দোনেশীয় কর্মকর্তা জানান, বিমান ট্রাফিক কন্ট্রোল প্রথমে একটি অনুমতি দেয়, তার দুই থেকে তিন মিনিট পর উপরে উঠার দ্বিতীয় আবেদনের অনুমতি দেয়া হয় পাইলটকে। এরপরই যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়, এখনো বিমানের সন্ধান মেলেনি। সূত্র : এনডিটিভি, আল-জাজিরা, বিবিসি

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ