ঢাকা, বুধবার 21 November 2018, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

৫ লাখ টাকা মুক্তিপন না পেয়ে স্কুল ছাত্র হত্যা ॥ নারীসহ ৪ জন আটক

কালিয়াকৈর সংবাদদাতা : ৫ লাখ টাকা মুক্তিপন না পেয়ে গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার সফিপুর পূর্বপাড়া এলাকা থেকে অপহরনের ৪ দিন পর মোস্তফা কামাল (৮) নামে এক স্কুল ছাত্রকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে অপহরণকারীরা।

সোমবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে র‌্যাব-১ সদস্যরা স্থানীয় জনৈক জাকির হোসেনের কলোনীর একটি ঘরের সিলিংয়ের উপর থেকে ওই স্কুল ছাত্রের বস্তাবন্ধী মৃত:দেহটি উদ্ধার করে।

এঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে এক নারীসহ ৪ জনকে আটক করা হয়েছে। আটককৃতরা হচ্ছে প্রতিবেশী মৃতঃ আব্দুল হামিদ আলীর ছেলে মুনছুর আলী মাতব্বর(৫৫), ঠাকুরগাও সদর উপজেলার মহেশপুর গ্রামের দবিদুর রহমানের ছেলে জাহাঙ্গীর আলম(৪০) ও জাহাঙ্গীরের স্ত্রী বেবী বেগম(৩৫) ও চাঁদপুরের কচুয়া থানার কহরথুরী গ্রামের ইসমাইল হোসেনের ছেলে রুবেল হোসেন(২২)নামে চার জনকে আটক করেছে র‌্যাব সদস্যরা।

রুবেল স্থানীয় জাকির হোসেনের ওই কলোনীর ভাড়াটিয়া। মৌচাক ফাড়ির ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক(এস আই) মোঃ সাইফুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সফিপুর পূর্বপাড়া এলাকার বাসিন্দা ও করণীনীট কম্পোজিট লিমিটেড কারখানার স্যাম্পলম্যান জয়নাল আবেদীনের ছেলে মোস্তফা কামাল(০৮)কে ১৪ জানুয়ারী-১৫ইং অপহরণ হয়।

অপহরণকারীরা মোবাইলে শিশুটির মুক্তিপন হিসেবে ৫ লক্ষ টাকা দাবী করে। পরে জয়নাল আবেদীন কালিয়াকৈর থানায় একটি সাধারন ডাইরী (জিডি নং-৫১২তাং ১৫-০১-১৪ইং) করে। মুক্তিপন দিতে অপরাকতা প্রকাশ করলে স্কুলছাত্র মোস্তফাকে অপহরণকারীরা গলায় গামছা পেচিয়ে শ্বারোধ করে হত্যা করে বস্তা বন্ধী করে রুবেলের রুমের সিলিংয়ের উপর তুলে রাখে। অত:পর র‌্যাব-১ এর সদস্যরা মোবাইল ট্র্যাকিং এর মাধ্যমে অপহরণকারীদের মধ্যে রুবেল হোসেনকে আটক করে। জিজ্ঞাসাবাদ করে। রুবেলের শিকারোক্তি অনুসারে অন্য একনারীসহ ৩ জনকে আটক। রুবেলের থাকার কক্ষের সিলিংয়ের উপর থেকে ঘটনার ৪ দিনপর শিশুটির বস্তাবন্ধী মৃত:দেহ উদ্ধার করে।

মোস্তফা কামাল স্থানীয় মাউন্ড এভারেষ্ট মডেল স্কুলের ২য় শ্রেনীর ছাত্র।

নিহত স্কুল ছাত্রের বাবা জয়নাল আবেদীন জানান, ৩ ছেলে সন্তানের মধ্যে সবার ছোট মোস্তফাকে ১৪ জানুয়ারী সকাল ১১টার পর থেকে খুজে না পাওয়া যায়নি। পরে মোবাইলে ৫ লাখ টাকা মুক্তিপন দাবী করে অপহরণকারীরা। মুক্তিপন না দেয়ায় তার ছেলেকে হত্যা করা হয়েছে। তিনি হত্যাকারীদের উপযুক্ত শাস্তি দাবী করে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন।

র‌্যাব-১এর অধিনায়ক লেপ্টেনেন্ড কমান্ডার শোয়াইব বি এন জানান, আসামীদের মোবাইল ট্যাকিংয়ের মাধ্যমে তাদের আটক করা হয়। এক আসামীর শিকারোক্তির অনুযায়ী ওই স্কুল ছাত্রের লাশ রুবেলের বাসা থেকে উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কালিয়াকৈর থানা পুলিশে হস্তান্তর করা হয়েছে।

আ.হু/ডিস

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ