ঢাকা, বুধবার 21 November 2018, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

কোয়ার্টার ফাইনালে উঠলো যারা


স্পোর্টস ডেস্ক : বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্ব শেষ হয়েছে। ঠিক হয়েছে বিশ্বকাপের আট কোয়ার্টার ফাইনালিস্ট। ‘এ’ গ্রুপের চার কোয়ার্টার ফাইনালিস্ট আগেই ঠিক হয়ে গিয়েছিল। এই গ্রুপ থেকে নিউজিল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশ উঠেছে শেষ আটে। ‘বি’ গ্রুপের শীর্ষ চার দল ঠিক হয়েছে রোববার। ‘বি’ গ্রুপ থেকে ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা, পাকিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ জায়গা করে নিয়েছে কোয়ার্টার ফাইনালে।

এবার বিশ্বকাপের শেষ আটের লড়াইটা শুরু হবে ১৮ মার্চ। সিডনিতে সেদিন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে মাঠে নামবে শ্রীলঙ্কা। পরের দিনই হাইভোল্টেজ ম্যাচে বাংলাদেশের মুখোমুখি হবে ভারত। মেলবোর্নে অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি। ২০ মার্চ অ্যাডিলেডে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে লড়বে পাকিস্তান। ২১ মার্চ চতুর্থ কোয়ার্টার ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের প্রতিপক্ষ ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ওয়েলিংটনে অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি।

 ‘এ’ গ্রুপের চার কোয়ার্টার ফাইনালিস্ট ঠিক হয়ে গিয়েছিল অবশ্য ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের জয়েই। শনিবার ঠিক হলো গ্রুপের লাইনআপ। ছয় ম্যাচের সবকটি জিতে শীর্ষে নিউজিল্যান্ড। চারটি করে ম্যাচ জিতলেও রান রেটে শ্রীলঙ্কার চেয়ে এগিয়ে থেকে অস্ট্রেলিয়া দ্বিতীয় স্থানে গ্রুপ পর্ব শেষ করলো। শ্রীলঙ্কা তৃতীয় স্থানে রইল। আর তিন ম্যাচ জিতে গ্রুপের চতুর্থ দল হিসেবে শেষ আটে গেল বাংলাদেশ দল।  

দুই ম্যাচ জিতে ইংল্যান্ড পঞ্চম হয়েছে। কোয়ার্টার ফাইনালে উঠতে না পারায় গ্রুপ পর্ব শেষে দেশেও ফিরে গিয়েছে ইংলিশরা। প্রথমবার বিশ্বকাপে এসে একটি ম্যাচ জিতেছে আফগানিস্তান। তারা একটি ম্যাচ জিতে ষষ্ঠ হয়েছে। আর কোনো ম্যাচ না জেতা স্কটল্যান্ড রয়েছে গ্রুপের তলানীর সপ্তম স্থানে।

বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বের শেষ দিনে ঠিক হয় ‘বি’ গ্রুপের কোয়ার্টার ফাইনালিস্ট। ভারত ছয় ম্যাচের সবকটি জিতে শীর্ষে আছে। চারটি করে ম্যাচ জিতলেও রান রেটের কারণে দক্ষিণ আফ্রিকা দ্বিতীয় স্থানে আর পাকিস্তান আছে তৃতীয় স্থানে। তিন ম্যাচ জিতেও রান রেটে এগিয়ে থেকে ওয়েস্ট ইন্ডিজ গেল শেষ আটে। সমান সংখ্যক ম্যাচ জিতেও রান রেটে পিছিয়ে থেকে আয়ারল্যান্ডকে বিদায় নিতে হলো বিশ্বকাপ থেকে। জিম্বাবুয়ে একটি ম্যাচ জিতেছে। প্র্রায় ২০ বছর পর আবারও বিশ্বকাপে আসা আরব আমিরাত ফিরেছে খালি হাতে। কোনো ম্যাচই না জেতা আমিরাত রয়েছে তলানীতে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ