ঢাকা, শনিবার 29 October 2016 ১৪ কার্তিক ১৪২৩, ২৭ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

খুলনায় ১৪৪০ কোটি টাকা আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ

খুলনা অফিস : খুলনা কর অঞ্চলের ২২টি সার্কেলে মোট টিআইএন ধারী করদাতার সংখ্যা দুই লাখ ৪০ হাজার ৩২৭। করদাতাদের কাছ থেকে ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে এক হাজার ১৫৮ কোটি ৪৮ লাখ টাকা রাজস্ব আদায় করা হয়। ২০১৬-২০১৭ অর্থবছরে কর আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে এক হাজার ৪৪০ কোটি টাকা।
সপ্তাহব্যাপী আয়কর মেলা উপলক্ষে নগরীর বয়রা কর ভবনে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় এ তথ্য জানানো হয়। ১ থেকে ৭ নবেম্বর পর্যন্ত কর ভবনে এ মেলা অনুষ্ঠিত হবে।
এছাড়া ২৪ থেকে ৩০ নবেম্বর আয়কর সপ্তাহ এবং ৩০ নবেম্বর আয়কর দিবস পালিত হবে। ওইদিনই রিটার্ন দাখিলের শেষ দিন।
এতে বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন-কর কমিশনার (খুলনা কর আপীল অঞ্চল) প্রশান্ত কুমার রায় ও কর কমিশনার মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। জানানো হয়, খুলনা বিভাগের ১০টি সিভিল জেলা নিয়ে কর অঞ্চল-খুলনা গঠিত।
মোট ২২টি কর সার্কেলের মধ্যে সার্কেল-১ (কোম্পানিজ) খুলনায় করদাতার সংখ্যা এক হাজার ৬৮০, সার্কেল-২ (কোম্পানিজ) এ দুই হাজার ১৭০, সার্কেল-৩ খুলনায় ২৬ হাজার ১৬৭, সার্কেল-৪ এ ২৪ হাজার ১০৭, সার্কেল-৫ এ ১৫ হাজার ৫৪৮, সার্কেল-৬ এ ১৪ হাজার ৯৫২, সার্কেল-৭ ( কোম্পানিজ) খুলনায় ৮ হাজার ২৬২, সার্কেল-৮ যশোরে ২৬ হাজার ৯৯৫, সার্কেল-৯ চুয়াডাঙ্গায় ১১ হাজার ৮১৭, সার্কেল-১০ মাগুরায় ৮ হাজার ৬৮৫, সার্কেল-১১ নওয়াপাড়ায় ৫ হাজার ৮৮৯, সার্কেল-১২ ঝিকরগাছায় ৮ হাজার ৩৭, সার্কেল-১৩ সাতক্ষীরায় ১৪ হাজার ৬৬৫, সার্কেল-১৪ বাগেরহাটে ১০ হাজার ৭০২, সার্কেল-১৫ নড়াইলে ৭ হাজার ৫২১, সার্কেল-১৬ সাতক্ষীরা কালিগঞ্জে ৪ হাজার ৭২৪, সার্কেল-১৭ মংলায় ২ হাজার ১৫৫, সার্কেল-১৮ কুষ্টিয়ায় ২০ হাজার ৪৭৪, সার্কেল-১৯ ঝিনাইদহে ১০ হাজার ৪৫৬, সার্কেল-২০ ঝিনাইদহের কালিগঞ্জে ৬ হাজার ৫২১, সার্কেল-২১ মেহেরপুরে ৪ হাজার ৯১৫ এবং সার্কেল-২২ ভেড়ামারায় ৪ হাজার ৪৮৫ জন।
এ সব সার্কেল থেকে ২০১১-২০১২ অর্থবছরে ৬২৫ কোটি ৫৮ লাখ টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে রাজস্ব আদায় করা হয় ৫৫০ কোটি ৭১ লাখ টাকা, ২০১২-২০১৩ অর্থবছরে ৭৭৫ কোটি টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে রাজস্ব আদায় করা হয় ৬৬০ কোটি ৮৩ লাখ টাকা, ২০১৩-২০১৪ অর্থবছরে ৮৫০ কোটি টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে রাজস্ব আদায় করা হয় সমপরিমাণ টাকা, ২০১৪-২০১৫ অর্থবছরে এক হাজার ১২০ কোটি টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে রাজস্ব আদায় করা হয় ৯৩৭ কোটি ২৮ লাখ টাকা এবং ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে এক হাজার ১৮২ কোটি টাকা লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে রাজস্ব আদায় করা হয় এক হাজার ১৫৮ কোটি ৪৮ লাখ টাকা।
কর মেলার বিষয়ে মতবিনিময়ে জানানো হয়, মেলায় রিটার্ন ফরম পূরণে সহায়তার জন্য হেলপ ডেস্ক, সোনালী/জনতা ব্যাংকের বুথ এবং নারী, প্রতিবন্ধী ও প্রবীণদের জন্য আলাদা কাউন্টার থাকবে। এছাড়াও মেলায় আয়কর অধিক্ষেত্র সংক্রান্ত তথ্য এবং আয়কর আইন বিষয়ক পরামর্শ দেয়া হবে। ইতোমধ্যেই মেলার প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। জনগণের সার্বিক অংশ গ্রহণ নিশ্চিত করতে আগামী ২৯ অক্টোবর থেকে খুলনা বিভাগীয় শহরে প্রচারণা শুরু হবে।
মতবিনিময় সভায় কমিশনার মো. ইকবাল হোসেন, অতিরিক্ত কর কমিশনার মো. রিয়াজুল ইসলাম, যুগ্ম কর কমিশনার মু. মহিতুর রহমান, সহকারী কর কমিশনার মো. খুরশীদ আলম, অতিরিক্ত সহকারী কর কমিশনার মো. গোলাম মোস্তফা, মিলন কুমার মৌলিক ও শেখ আব্দুল্লাহ উপস্থিত ছিলেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ