ঢাকা, সোমবার 31 October 2016 ১৬ কার্তিক ১৪২৩, ২৯ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ব্যবসায়ী ও করপোরেট প্রতিষ্ঠানের দৃষ্টি কেড়েছে ওয়ালটন

প্রথমবারের মতো আয়োজিত তিন দিনের লাইট এক্সপো শেষ হলো আজ। মেলায় ব্যবসায়ী, কর্পোরেট ক্লায়েন্ট ও সাধারণ ক্রেতাদের নজর কেড়েছে দেশীয় ব্র্যান্ড ওয়ালটন। মেলায়  বেশ কয়েকটি করপোরেট প্রতিষ্ঠান থেকে উল্লেখযোগ্য পরিমাণ অর্ডার পেয়েছে ওয়ালটন। ইতোমধ্যে কয়েকটি গ্রুপের সাথে বিভিন্ন প্রকারের এলইডি লাইটিং পণ্য বিক্রির প্রক্রিয়া চূড়ান্ত হয়েছে। পাইপ লাইনে রয়েছে আরো প্রায় ২৪টি করপোরেট প্রতিষ্ঠানের কাছে পণ্য বিক্রির প্রক্রিয়া। মেলায় ওয়ালটন প্যাভিলিয়নে প্রদর্শিত হয়েছে দেড় শতাধিক মডেলের পণ্য। গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় শুরু হয়েছে ’বাংলাদেশ লাইটিং এক্সপো-২০১৬’ এবং ’ইন্টেরিয়র-এক্সটেরিয়র ইন্টারন্যাশনাল এক্সপো-২০১৬’ শীর্ষক দুটি আন্তর্জাতিক প্রদর্শনী। আজ শনিবার ছিল মেলার শেষ দিন। বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো আয়োজিত এই মেলায় দেশী-বিদেশী বিভিন্ন কোম্পানির প্রায় ৬৫টি স্টল ছিল।  তিন দিনব্যাপী এই মেলায় এলইডি লাইট, সিএফএল লাইট, এলইডি প্যানেল লাইট, লাইটিং অ্যাকসেসরিজ, ডেকোরেটিভ সুইচ ও সকেট, রুম হিটার, গিজার ও ওয়াটার হিটার, ডেকোরেটিভ লাইটিং ও ঝারবাতি, এয়ার-কন্ডিশনার, কার্পেট, সোলার প্যানেল, সোলার লাইট, ইমার্জেন্সি লাইট, স্ট্রিট লাইট, লাইট শেড, ল্যান্ডস্ক্যাপ, রিচার্জেবল ফ্যান, সিলিং ফ্যান, রিচার্জেবল ব্যাটারিসহ  অসংখ্য পণ্য প্রদর্শন করা হয়েছে। 

উদ্বোধনের পর থেকেই বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সাপ্লাই ম্যানেজার, কমার্শিয়াল অফিসার, কনসালটেন্টসহ সকল শ্রেণীর ক্রেতারা মেলা পরিদর্শনে আসেন। তবে ক্রেতা সমাগম সবচেয়ে বেশি ছিল শুক্র ও শনিবার। ক্রেতা দর্শনার্থীদের অনেকেই দেশেই আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন এলইডি লাইট, প্যানেলসহ বিভিন্ন ধরণের ইলেকট্রিক্যাল পণ্যসামগ্রী প্রস্তুত করায় ওয়ালটনের ব্যাপক প্রশংসা করেছেন। অন্যান্য ব্র্যান্ডের তুলনায় ওয়ালটন পণ্যের উচ্চমান ও সাশ্রয়ী দামের কারণে ইতোমধ্যেই অনেকেই পণ্য ক্রয়ের আগ্রহ দেখিয়েছে।  মেলা ঘুরে দেখা গেছে, মেলায় ওয়ালটনের এলইডি ১২ ওয়ার্ডের এক্সক্লুসিভ বাল্ব বিক্রি হচ্ছে ৩২৫ টাকায়। কিন্তু, সমজাতীয় বিদেশী কোম্পানির বাল্ব মেলায় বিক্রি হচ্ছে ৬০০ টাকায়। এছাড়াও, মেলায় ৩০ ওয়াট থেকে ১৫০ ওয়াটের ফ্ল্যাট লাইট ওয়ালটন বিক্রি করছে ৩ হাজার থেকে ১১ হাজার টাকায়, যেখানে বিদেশী ব্র্যান্ডের একই ওয়াট এবং সমমানের লাইট বিক্রি হচ্ছে সাড়ে ৪ হাজার থেকে ২০ হাজার টাকায়। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ