ঢাকা, শনিবার 05 November 2016 ২১ কার্তিক ১৪২৩, ৪ সফর ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বৃষ্টির দিনেও মুখরিত আয়কর মেলা প্রাঙ্গণ

স্টাফ রিপোর্টার : দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট নিম্নচাপের প্রভাবে রাজধানীতে সকাল থেমে থেমে বৃষ্টি হয়েছে। আশঙ্কা রয়েছে আরো বৃষ্টি কিংবা ঝড়ো বাতাসের। এরূপ বৈরী আবহাওয়ার মধ্যেও রাজধানীর আগারগাঁওয়ের আয়কর মেলা-১০১৬ করদাতাদের উপস্থিতিতে মুখরিত হয়ে উঠেছে।
সপ্তমবারের মতো আয়োজিত আয়কর মেলার চতুর্থ দিনে গতকাল শুক্রবার সকাল থেকে করদাতারা আসতে শুরু করেন। যদিও সকালে বৃষ্টির হওয়ার কারণে প্রথম দিকে করদাতাদের উপস্থিতি কিছুটা কম ছিল।
তবে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে করদাতাদের সরব উপস্থিতিতে উপচে পড়া ভিড় লক্ষ্য করা  গেছে। বিশেষ করে আয়কর রিটার্ন, ই-টিআইএন, ই-ফাইলিং ও হেল্প ডেস্কে বেশি ভিড় দেখা যাচ্ছে।
এবারই প্রথম আয়কর মেলায় উপস্থিত হয়েছেন রাজধানীর ধানমন্ডির বাসিন্দা হাফিজ আহমেদ। সদ্য কর্মজীবনে প্রবেশ করেছেন। বেসরকারি সংস্থায় কাজ করছেন।
তিনি বলেন, একজন সচেতন নাগরিক হিসেবে আমিও চাই কর দিতে। তাই আয়কর মেলায় এলাম। এখানে ইটিআইএন বুথে নতুন ইটিআইএন রেজিস্ট্রেশন করলাম। ভালোই লাগছে। এখন রিটার্ন জমা দেব।
৬২ হাজার বর্গফুটের এনবিআরের নিজস্ব ভবনের বিশাল চত্বরে আয়োজিত আয়কর মেলায় এবারে মোট বুথের সংখ্যা ১০৯টি। মেলায় অধিক সংখ্যক সেবা বুথ ছাড়াও থাকছে মুক্তিযোদ্ধা, সিনিয়র সিটিজেন, নারী ও প্রতিবন্ধী করদাতাদের পৃথক বুথ, কর একাডেমি, শুল্ক একাডেমি, কর ও মূসক ট্রাইব্যুনালের জন্য বুথ ও বাচ্চাদের জন্য পৃথক কিডস জোন।
কর দিতে ব্যক্তি শ্রেণির করদাতাদের উৎসাহিত করতে প্রতি বছর আয়কর মেলার আয়োজন করছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। মেলায় ই-টিআইএন রেজিস্ট্রেশন, ই-পেমেন্ট ও অনলাইনে আয়কর বিবরণী দাখিলসহ কর সংক্রান্ত সব সেবা পাওয়া যায়।
রয়েছে প্রথমবারের মতো অনলাইনে আয়কর রিটার্ন দাখিলের সুবিধা। আয়োজকদের প্রত্যাশা- এবারের মেলা হয়ে উঠবে কর শিক্ষণ ফোরাম। মেলায় এসে শিক্ষার্থীরাও জানতে পারবে কর সম্পর্কিত নানা তথ্য।
মেলার তৃতীয় দিন শেষে ৯৫২  কোটি ২০ লাখ ২১ হাজার ৯৯৪ টাকা কর আদায় হয়েছে। যা ২০১৫ সালের ওই সময়ের চেয়ে ৫ দশমিক ৩৮ শতাংশ বেশি। তিন দিন শেষে মেলায় সেবা গ্রহণ করেছে ৩ লাখ ২৫ হাজার ৮৯৩ জন, আয়কর রিটার্ন দাখিল করেছে ৬১ হাজার ৬০৭ জন ও নতুন ই-টিআইএন নিয়েছে ১৮ হাজার ৮০০ জন করদাতা।
এবারের আয়কর মেলা রাজধানীর আগারগাঁওয়ের জাতীয় রাজস্ব ভবনে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মেলার পরিধি গত বছরের মেলার চেয়ে কয়েকগুণ বাড়ানো হয়েছে। প্রতিদিন মেলা সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত চলবে। মেলায় করদাতাদের আসার সুবিধার জন্য রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে বিনা ভাড়ায় বাস সার্ভিস চালু রয়েছে।
‘সবাই মিলে দেব কর, দেশ হবে স্বনির্ভর’ শ্লোগানে শুরু হওয়া এই মেলা শেষ হবে ৭ নবেম্বর। রাজধানীসহ সব বিভাগীয় শহরে সাত দিনব্যাপী এ মেলা চলছে। জেলা শহরগুলোতে চার দিন, ২৯টি উপজেলায় দুই দিনব্যাপী স্থায়ী আয়কর মেলা ও ৫৭টি উপজেলায় এক দিন ভ্রাম্যমাণ আয়কর মেলা অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ