ঢাকা, সোমবার 14 November 2016 ৩০ কার্তিক ১৪২৩, ১৩ সফর ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

মোরেলগঞ্জ মাদরাসা ছাত্র কুপিয়ে হত্যা ॥ মা-মেয়ে আটক মামলা দায়ের

মোরেলগঞ্জ (বাগেরহাট) সংবাদদাতা : বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলা খাউলিয়া ইউনিয়নের চালিতাবুনিয়া গ্রামে শনিবার রাতে জুয়েল নামের এক সন্ত্রাসী কুপিয়ে হত্যা করেছে মাদরাসা ছাত্র আল-আমিন শেখকে(১৮)। সে চালিতাবুনিয়া ওলামাগঞ্জ এনইউ সিনিয়র মাদরাসার আলিম পরীক্ষার্থী।
ঘটনার দিন রাত ৮ টার দিকে  অত্র গ্রামের আবুল হোসেন শেখের ছেলে মাদরাসার আবাসিক ছাত্র আল-আমিন রাতের খাবার নিয়ে বাড়ি থেকে মাদরাসায় যাচ্ছিল। পথিমধ্যে পূর্ব থেকে ওঁৎ পেতে থাকা আবুল কাজীর পুত্র জুয়েল কাজী (২০) তার উপর হামলা চালায়। হামলাকারী জুয়েল তাকে কুপিয়ে মারাত্মক রক্তাক্ত ও জখম করে। রক্তাক্ত জখম অবস্থায় আলমিন কে মোরেলগঞ্জ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাত সাড়ে ১০ টার দিকে তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় পুলিশ জুয়েলের মা কোহিনুর বেগম(৪৫) ও তার মেয়ে পপি ওরফে লামিয়া (১৫) কে রোববার সকালে পালিয়ে যাবার সময় ছোলবাড়িয়া বাস স্ট্যান্ড থেকে আটক করে।
এ ঘটনায় নিহতের মা আকলিমা বেগম বাদি হয়ে জুয়েল সহ ৫ জনকে আসামী মোরেলগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। থানা অফিসার ইন চার্জ মো. রাশেদুল আলম জানান, ইতোপূর্বে জুয়েলের মা কোহিনুর বেগম বাদি হয়ে নিহত আল-আমিন সহ ৫/৬ জনকে আসামী করে  ২৩ অক্টোবর আদালতের নির্দেশে থানায় মামলা দায়ের করেন। এনিয়ে দুই পরিবারের দ্বন্দ্বের জের ধরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটতে পারে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ