ঢাকা, বুধবার 26 September 2018, ১১ আশ্বিন ১৪২৫, ১৫ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

জাপানী খাবার: কৌরাকু বেনতো

অনলাইন ডেস্ক : অক্টোবর মাসে জাপানে কৌরাকু বা শরতকালীন বাইরে ঘোরার মৌসুম শুরু হয়। পাহাড়ে চড়া, শরতের বাহারী রঙের পাতা দেখা থেকে শুরু করে, স্কুলের স্পোর্টসের দিন উৎসাহ দেয়া পর্যন্ত লোকজন বেনতো' বা বাড়িতে তৈরি লাঞ্চ বক্সের খাবার উপভোগ করে থাকেন। আজকের রেসিপি হচ্ছে শরতকালীন কৌরাকু বেনতো'। আর শরতেই মানুষের রুচি থাকে বেশি।

উপকরণ

(মিষ্টি আলুর রাইস বল)

  • ৩০০ গ্রাম চাল
  • ১৫০ গ্রাম মিষ্টি আলু
  • ৪৩০ মিলিলিটার পানি
  • ১/২ চা-চামচ লবণ 

(মিষ্টি পিকল করা সবজি)

  • ৫০ গ্রাম পাপরিকা
  • ৫০ গ্রাম গাজর
  • ৫০ গ্রাম রেনকোন বা পদ্ম গাছের মূল 
  • ৫০ গ্রাম যুক্কিনি 
  • ৫০ গ্রাম লাল শালগম
  • ১০০ মিলিলিটার ভিনেগার বা সিরকা 
  • ১৫০ মিলিলিটার পানি
  • ৩ টেবিল-চামচ চিনি 
  • ১ চা-চামচ লবণ 

(জাপানি রোল করা ওমলেট)

  • ৪টি ডিম
  • ২ টেবিল-চামচ চিনি 
  • ১/৬ চা-চামচ লবণ 
  • ১ চা-চামচ সয়াসস 
  • ২ টেবিল-চামচ পানি
  • সামান্য তেল 

প্রস্তুত প্রণালী

(মিষ্টি আলুর রাইস বল)

  • একটি পাত্রে চাল নিয়ে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিন। একটি ঢাকনাওয়ালা পটের মধ্যে চাল রেখে পানি যোগ করুন। এভাবে ৩০ মিনিট রেখে দিন। মিষ্টি আলু ধুয়ে খোসাসহ ১ বর্গসেন্টিমিটার আকারে কেটে নিন এবং পানিতে ভিজিয়ে রাখুন।
  • পটের মধ্যকার চালে লবণ যোগ করুন এবং চালের উপর মিষ্টি আলুর টুকরোগুলো রেখে ঢাকনা বন্ধ করে মাঝারি আঁচে রান্না করুন। পানি ফুটে উঠলে, ৩০ সেকেন্ড অপেক্ষা করে আঁচ কমিয়ে আরো ১২ মিনিট রান্না করুন। ভাত রান্না হয়ে গেলে, চুলো বন্ধ করে ঢাকনা আটকে ১০ মিনিট দমে রাখুন। হালকা করে ভাত নেড়ে একবারে মুখে দেয়া যায় এমন আকারের রাইস বল তৈরি করুন।

(মিষ্টি পিকল করা সবজি)

  • একটি সসপ্যানে পানি, চিনি ও লবণ নিয়ে মিশ্রণটি গরম করুন যতক্ষণ না চিনি ও লবণ গলে যায়। চুলো বন্ধ করে এতে সিরকা যোগ করুন।
  • সব সবজি একবারে মুখে দেয়ার আকারের করে কেটে নিন। পাপরিকা ২ বর্গসেন্টিমিটার করে, গাজর ও রেনকোন গোল করে তারপর চারভাগ করে, যুক্কিনি গোল করে তারপর দুইভাগ করে এবং লাল ছোট শালগম অর্ধেক করে কেটে নিন।
  • সবজিগুলো গরম পানিতে খুব অল্প সময় ডুবিয়ে বা রঙ হালকা বদলে গেলেই নামিয়ে নিয়ে পানি ঝরিয়ে নিন। একটি পাত্রে সবজি নিয়ে মিষ্টি পিকল করার ভিনিগার যোগ করুন। পিকল করার ওজন দিয়ে চেপে রেখে দিন এবং এভাবে ১ ঘণ্টা রাখুন।

(জাপানি রোল করা ওমলেট)

  • একটি পাত্রে মশলা নিয়ে মিশিয়ে নিন। অন্য একটি পাত্রে, ডিম ভেঙ্গে রেখে ভাল করে ফেটে নিন। একটু একটু করে মশলা যোগ করার সময় নাড়া অব্যাহত রাখবেন।
  • একটি ফ্রাইপ্যান গরম করে এতে তেল ঢালুন। প্রথমে ফ্রাইপ্যানে তিন ভাগের এক ভাগ ডিমের মিশ্রণ যোগ করুন। ডিম নেড়ে দিন এবং অর্ধেক রান্না হলে চুলো বন্ধ করে দিন। ফ্রাইপ্যানের দূরের প্রান্ত থেকে ডিম ভাজ করতে করতে দ্রুত আপনার দিকে আসুন।
  • ফ্রাইপ্যানের মধ্যে আপনার থেকে দূরের দিকে ডিম পিছলে সরিয়ে দিন। তারপর ফ্রাইপ্যানের মধ্যে অবশিষ্ট ডিমের মিশ্রণের অর্ধেক যোগ করুন। আবার ডিম দূরের প্রান্ত থেকে আপনার দিকে ভাজ করতে থাকুন।
  • ডিমের অবশিষ্ট মিশ্রণটুকু ফ্রাইপ্যানে যোগ করে আপনার দিকে ভাজ করে আনুন। অল্প আঁচে হালকা বাদামী হওয়া পর্যন্ত ভাজুন। 
  • প্লাস্টিকের র‍্যাপিং পেপারের উপর ডিম রেখে চাপ দিয়ে আকার ঠিক করে নিন। রাপিং পেপার খুলে ডিম ৩ বর্গসেন্টিমিটার আকারে কেটে নিন।

কিভাবে কৌরাকু বেনতো' সাজাবেন? বেনতো' বক্সের মধ্যে মুরগীর মাংসের টাসুটা আগে, ডিমের বর্গাকার টুকরো এবং মিষ্টি পিকল করা সবজি সাজিয়ে রাখুন। মিষ্টি পিকল করা সবজি থেকে বেরিয়ে আসা পানি ফেলে দিন এবং পাতা বা অ্যালুমিনিয়ামের ফয়েল ব্যবহার করে খাবার বিভিন্ন অংশে ভাগ করে রাখুন। পাশাপাশি ভিন্ন ভিন্ন রঙের খাবার রাখলে আপনার বেনতো' বক্স দেখতে সুন্দর লাগবে।

টিপস্‌

জাপানে, স্কুল বা অফিসে বেনতো' লাঞ্চ বক্স নিয়ে যাওয়াটা সবার সাধারণ অভ্যেস। অনেকেই অ্যালুমিনিয়াম বা প্লাস্টিকের তৈরি বেনতো' বক্স থেকে ঠাণ্ডা খাবার বের করে খেতেন। কিন্তু সম্প্রতি ক্রমবর্ধমান সংখ্যক বেনতো' বক্সে খাবার গরম থাকে, ফলে মানুষ গরম খবারা খেতে পারেন। সবচেয়ে জনপ্রিয় বক্সটি হচ্ছে ভ্যাকুয়াম লাঞ্চ জার, যেখানে লোকজন খাবার গরম রাখতে পারেন। সর্বাধুনিক ধাঁচে এসেছে রাইস কুকার হিসাবে যার মধ্যে চাল রাখা যায়। এর মাধ্যমে কেবল সকেটে প্লাগ ঢুকিয়েই আপনারা সদ্য রান্না করা ভাত খেতে পারবেন। এটি সবার বেশ মনোযোগ কেড়েছে। শিনকানসেন বুলেট ট্রেন বা দূরপাল্লার ট্রেনের যাত্রীদের জন্য বিভিন্ন ধরনের একিবেন বা ট্রেন স্টেশনের বেনতো'ও বিক্রি হয়। এক ধরনের বেনতো' বক্সের সাথে লাগানো সুতো ধরে টান দিলেই তা গরম হয়ে যায়। গোপন রহস্য হচ্ছে, লাইম পাউডারের একটি ব্যাগ এবং পানি বেনতো' বক্সের নিচে লুকানো থাকে। সুতো ধরে টান দিলে ব্যাগটি ফেটে যায় এবং পানি বেরিয়ে আসে। লাইম পাউডার এবং বেরিয়ে আসা পানির মধ্যকার রাসায়নিক বিক্রিয়ার কারণে তাপের সৃষ্টি হয়। আর এই তাপ বেনতো'কে গরম করে। 

জাপানিদের বেনতো'র প্রতি এই আগ্রহের কারণেই বুদ্ধিমত্তা কাজে লাগিয়ে বিভিন্ন ধরনের বেনতো' বক্স সাজানো হয়।  সূত্র:রেডিও জাপান-এনএইচকে ওয়াল্ড। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ