ঢাকা, বুধবার 30 November 2016 ১৬ অগ্রহায়ন ১৪২৩, ২৯ সফর ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

খেলাফত শাসন ব্যবস্থাই পারে মানুষের অধিকার নিশ্চিত করতে -মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ

গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টায় রাজধানী ঢাকার কামরাঙ্গীরচর জামিয়া নুরিয়া মাদরাসা ময়দানে বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের ৩৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন করা হলো

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন প্রধান, আমীরে শরীয়ত মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ ইবনে হাফেজ্জী হুজুর বলেছেন, আজ মিয়ানমারসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মুসলমানদের উপর চলছে গণহত্যা, জুলুম-নির্যাতন এবং প্রতিহিংসার দাবানল। কিন্তু তাদের পক্ষে কথা বলার, তাদের পাশে দাঁড়াবার কেউ নেই। অথচ হযরত মহানবী (সাঃ) নিষ্ঠুর বর্বর, জাহিলিয়াত যুগেও পরাজিত শত্রুদের উপর প্রতিশোধের পরিবর্তে দয়া ও ক্ষমার যে নজির স্থাপন করেছিলেন পৃথিবীতে তা আজ বিরল। খেলাফত শাসন ব্যবস্থার মাধ্যমে হযরত মুহাম্মাদ (সা:) যে ইনসাফ ও ন্যায়বিচার বিশ্ববাসীকে উপহার দিয়ে গেছেন তাতে মুসলমানসহ সকল ধর্মের মানুষের ন্যায্য অধিকার রয়েছে। ভিন্ন মতাবলম্বীদের ইসলামের ভ্রাতৃত্ব বন্ধনে আবদ্ধ করে সুসংহত জাতিতে রূপান্তরিত করেছিলেন এবং প্রতিষ্ঠা করেছিলেন অনন্য সাম্য ও সৌহার্দভিত্তিক আদর্শ রাষ্ট্র ব্যবস্থা। মহানবী (সা.) জাতি, ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে গোটা মানবজাতির জন্যই মহান আদর্শ। বিশ্বনবী (সাঃ) অনুপম কালজয়ী আদশের্র অনুসরণে খেলাফত পদ্ধতির শাসন ব্যবস্থাই পারে মজলুমের অধিকার ফিরিয়ে দিতে, সকল জুলুম-নির্যাতন খুন-রাহাজানি বন্ধ করে শান্তির সমাজ প্রতিষ্ঠা করতে।
গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টায় রাজধানী ঢাকার কামরাঙ্গীরচর জামিয়া নুরিয়া মাদরাসা ময়দানে বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের ৩৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে পতাকা উত্তোলন, শপথ গ্রহণ ও আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এতে উপস্থিত ছিলেন মাওলানা মুহাম্মাদ জাফরুল্লাহ খান, মাওলানা সোলায়মান নোমানী, মাওলানা ফারুক আহমাদ, মাওলানা মাহবুবুর রহমান, আনিসুর রহমান জিন্নাহ, কাজী আজিজুল হক, মাওলানা হাবিবুল্লাহ মিয়াজী, মাওলানা সানাউল্লাহ, মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, মুফতি ফখরুল ইসলাম, মাওলানা সুলতান মহিউদ্দিন, ডা: নেয়ামত আলী ফকীর, মাওলানা সাইফুল ইসলাম সুনামগঞ্জী, মাওলানা আবু তাহের, মাওলানা মাহবুবুর রহমান ও ক্বারী সিদ্দীকুর রহমান প্রমুখ।
মাওলানা আতাউল্লাহ আল্লাহর জমিনে আল্লাহর খেলাফাত প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, সবকিছুর মালিক আল্লাহ তাআলা। মালিকানা যার, আইন তার। সুতরাং আল্লাহর জমিনে আল্লাহর আইনই চলবে। সংসদে আল্লাহর আইন পাস করে কুরআন সুন্নাহর শাসন কার্যকর করতে হবে। খেলাফত প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে তাওহিদী জনতাকে নতুন করে জাগ্রত করতে হবে । তিনি দল-মত, জাতি,ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলকে এক ও নেক হয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে খেলাফত প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে কাজ করে যাওয়ার আহ্বান জানান। প্রেসবিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ