ঢাকা, শুক্রবার 9 December 2016 ২৫ অগ্রহায়ন ১৪২৩, ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

গ্রেফতার এড়িয়ে আসামিরা আত্মগোপনে

দাউদকান্দি (কুমিল্লা) সংবাদদাতা: হোমনা উপজেলার ছয়ফুল্লাকান্দি মাথাভাঙ্গা গ্রামে লতিফ খুনের ঘটনায় কেউ গ্রেফতার না হওয়ায় দিশেহারা পরিবারের লোকজন। 

গত ২৮ নভেম্বর রাতে হোমনা উপজেলার ছয়ফুল্লা কান্দি মাথাভাঙ্গা গ্রামের আব্দুল লতিফ মিয়া (৫১) পার্শ্ববর্তী মুন্সীর হাটে মশার কয়েল আনতে গিয়ে বাসায় না ফেরায় তার স্ত্রী মিনু আক্তার রাতভর খোঁজাখুঁজি করেও তাকে পাচ্ছিল না। 

মঙ্গলবার সকালে বাড়ির পশ্চিমে প্রায় আধা কিলোমিটার দূরে ডোবা জমি ( নাড়া খেতে ) তার গলা কাটা ও মাথাসহ বিভিন্ন স্থানে ধারালো অস্ত্রাঘাতে ক্ষতবিক্ষত লাশ পুলিশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমেক হাসপাতালে পাঠায়। 

এই ঘটনায় লতিফ মিয়ার স্ত্রী মিনু আক্তার বাদী হয়ে হোমনা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। লতিফ খুনের ঘটনায় এ পর্যন্ত কেউ গ্রেফতার না হওয়ায় দিশেহারা পরিবারের লোকজন। 

পাচ মেয়ে, এক ছেলে, বিধবা স্ত্রী সহ আত্মীয় স্বজনরা ন্যায়-বিচার নিশ্চিত করতে প্রসাশনের প্রতি জোরদাবি জানিয়েছেন। 

থানা প্রসাশন সূত্রে জানা গেছে আসামিদের আটকের জোর প্রচেষ্টা চলছে তবে ময়নাতদন্ত প্রতিবেদনসহ প্রকৃত অপরাধীদের আটকের পর খুনের মূল রহস্য জানা যাবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ