ঢাকা, মঙ্গলবার 13 December 2016 ২৯ অগ্রহায়ন ১৪২৩, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ইউপি চেয়ারম্যান হত্যার বিচারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন

জয়পুরহাট সংবাদদাতা : জয়পুরহাটের ভাদসা ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান একে আজাদ হত্যা পরিকল্পনাকারী, আসামীদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে তার মা। হত্যার পূর্বে গুলীর শব্দ শুনতে পেয়েছিল নিহত আজাদের মা। কয়েকটি গুলীর শব্দ শুনে মা চিৎকার দিয়ে অন্য ছেলেদের বলেছিল ’আমার আজাদকে গুলী করেছে, তোরা দেখ’। মায়ের সেই সেদিনের আশংকা সত্যি হয়েছিল। বাড়ি থেকে মাত্র ৫শ’গজ দুরে গত ৪জুন আজাদকে গুলী ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করেছিল সন্ত্রাসীরা। মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে বগুড়া ও ঢাকার হাসপাতালে নেওয়া হয়েছিল ৮দিন চিকিৎসা নেওয়ার পর তার মৃত্যু হয়। কান্নাজড়িত কন্ঠে ঘটনার বিবরণ দেন নিহত আজাদের মা সাহারা বেগম। লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, ওইদিনের ঘটনায় ৫জুন ৬জনকে আসামী করে পুলিশের সহযোগিতায় থানায় মামলা হয়েছিল। পুলিশ ৫জনকে গ্রেফতার করেছিল তার মধ্যে পুলিশের সাথে বন্দুক যুদ্ধে সোহেল ও মনির নামে ২’জন মারা যায় বাকি ৩ আসামী সাদ্দাম, হাকিম ও সৈকত আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয় এবং হত্যাকান্ডের বিবরণ দেয়। আসামীরা জবানবন্দিতে হত্যার পরিকল্পনাকারী হিসাবে সাবেক চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি এবং একে আজাদের নির্বাচনী প্রতিদ্বন্দ্বী হাতেম আলী মন্ডলের নাম উল্লেখ করে। পরবর্তীতে মুল আসামী মুন্না পারভেজ ঢাকায় র‌্যাবের হাতে গ্রেফতারের পর হত্যার পরিকল্পনাকারি হিসাবে হাতেম আলীর নাম উল্লেখ করে যা বিভিন্ন মিডিয়ায় প্রচার ও প্রকাশিত হয়। পুলিশ প্রশাসন সব জেনেও মুল পরিকল্পনাকারী ও অন্য আসামীদের গ্রেফতার করেনি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ