ঢাকা, শনিবার 17 December 2016 ৩ পৌষ ১৪২৩, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

স্বাধীনতা যুদ্ধে আলেমদের অবদান ধামাচাপা দেয়া হচ্ছে -মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন প্রধান, আমীরে শরীয়ত মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ ইবনে হাফেজ্জী হুজুর বলেছেন, স্বাধীনতা আল্লাহ তা’আলার মহান নেয়ামত। কোন ব্যক্তি, গোষ্ঠী বা একক কোন দলের অর্জন নয়। উপমহাদেশের আজাদী আন্দোলন, বাংলাভাষা আন্দোলন ও স্বাধীনতা সংগ্রামসহ সকল জাতীয় অর্জনে এ দেশের আলেম সমাজের অগ্রণী ভূমিকা রয়েছে। কিন্তু ইসলাম ও আলেম বিদ্বেষী কুচক্রী মহলের কারসাজিতে ইতিহাসে স্বাধীনতা যুদ্ধে আলেমদের অবদানের কথা ধামাচাপা দেয়া হচ্ছে। আলেমদের পরিকল্পিতভাবে স্বাধীনতা বিরোধী বানানো হচ্ছে। স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস জাতির সামনে তুলে ধরতে আলেমদেরই ভূমিকা রাখতে হবে।
গতকাল শুক্রবার সকালে রাজধানী ঢাকার কামরাঙ্গীরচর জামিয়া নুরিয়া মাদরাসায় মুক্তিযুদ্ধে শহিদদের রূহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া মাহফিলে তিনি এসব কথা বলেন। এতে উপস্থিত ছিলেন মাওলানা মোহাম্মাদ জাফরুল্লাহ খান, মাওলানা হাবিবুল্লাহ মিয়াজী, মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, মাওলানা সাজেদুর রহমান ফয়েজী, মুফতী ইলয়াছ মাদারীপুরী, মাওলানা সুলতান মহিউদ্দিন, মাওলানা আবুল কাসেম রায়পুরী,, মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস ও মাওলানা রহমাতুল্লাহ প্রমুখ।
মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ আরো বলেন, সর্বজন শ্রদ্ধেয় বুযুর্গ হাফেজ্জী হুজুর রহ. এর নির্দেশে আলেম ওলামাসহ বহু মানুষ মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন। কিন্তু ৪৫ বছর পর আজ তার নাম স্বাধীনতা বিরোধীদের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করে হাইকোর্টে রিট করেছে ইসলাম ও আলেম বিদ্বেষী মুনতাসির মামুন ও শাহরিয়ার কবির। তিনি অবিলম্বে এ তালিকা থেকে হাফেজ্জী হুজুর রহ. এর নাম প্রত্যাহার করার আহবান জানান। অন্যথায় এদেশের লাখ লাখ আলেম-ওলাামা ও তাওহিদী জনতার আন্দোলনের দাবানল সারা দেশে ছড়িয়ে পড়বে। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ