ঢাকা, বুধবার 11 January 2017, ২৮ পৌষ ১৪২৩, ১২ রবিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ধর্ষকের ঘর থেকে অস্ত্র উদ্ধার

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) সংবাদদাতা : ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার সহনাটি ইউনিয়নের সোনাকান্দি গ্রামে স্বামী পরিত্যক্ত এক সন্তানের জননীকে গভীর রাতে বাড়ী থেকে জোরপূর্বক উঠিয়ে নিয়ে রাতভর ধর্ষণের অভিযোগ ওঠেছে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান দুলাল আহাম্মেদ ওরফে দুলাল ডাকাতের (৪৮) বিরুদ্ধে।
এ ঘটনায় ওই ধর্ষিতা নারী বাদী হয়ে শনিবার (৭ জানুয়ারী) রাতে সহনাটি ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান দুলাল সহ ৭ জনের বিরুদ্ধে গৌরীপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন (মামলা নং-৫, তাং-০৭/০১/১৭ ইং)।
পুলিশি অভিযানে ধর্ষকের ঘর থেকে অস্ত্র উদ্ধার করে। গৌরীপুর থানার এসআই রিপন এ বিষয়ে সত্যতা নিশ্চিত করেন। ধর্ষিতা নারীর ভাই শেখ রাসেল জানায় শুক্রবার দিবাগত রাতে নিজ বাড়ী থেকে একই গ্রামের প্রতিবেশী সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান দুলাল সহ আরো ৬/৭ জন অস্ত্রের মুখে তার বোনকে জোরপূর্বক উঠিয়ে দুলালের বাড়িতে নিয়ে যায়। পরে ওই দিন শেষ রাতে দুলাল নিজ ঘরে খাটের ওপর তার বোনকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। ধর্ষণের পরও তার বোনকে দুলালের ঘরে আটকে রাখা হয়েছিল। এ ঘটনাটি গৌরীপুর থানায় পুলিশকে জানানোর পর এস আই রিপন ও সঙ্গীয় পুলিশ শনিবার দুপুরে দুলালের ঘর থেকে তার বোনকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। গৌরীপুর থানার এস আই রিপন জানান খবর পেয়ে শনিবার দুপুরে অভিযান চালিয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল দুলালের ঘর থেকে ওই নারীকে বাচ্চা সহ উদ্ধার করা হয়।
এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দুলাল ও তার সহযোগিরা পালিয়ে যায়। অভিযানকালে দুলালের ঘর থেকে দেশীয় অস্ত্র ও মাদক সেবনের সামগ্রী জব্দ করা হয়। গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ দেলায়ার আহাম্মদ জানান উক্ত মামলার আসামীদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশের জোর অভিযান চলছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ