ঢাকা, বৃহস্পতিবার 12 January 2017, ২৯ পৌষ ১৪২৩, ১৩ রবিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

উচ্চ আদালতের রায় অমান্য

সোনারগাঁ (নারায়ণগঞ্জ) সংবাদদাতাঃ উচ্চ আদালতের নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও উপজেলার পিরোজপুর ইউনিয়নের কান্দারগাঁও সোনারগাঁ রিসোর্ট সিটিতে অবৈধ বালু ভরাটকে কেন্দ্র করে গত শনিবার গ্রামবাসী ও বালু সন্ত্রাসীদের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছিল। প্রায় ৭শত বিঘা কৃষি জমি অবৈধভাবে দখলদার ইউনিক গ্রুপের বিপক্ষে মামলা করেছিল পরিবেশবাদী সংঘঠন বেলা। সেই মামলায় মহামান্য উচ্চ আদালতের একটি ব্রাঞ্চ ২০১৪ সালে মামলার পক্ষে রায় দিয়ে অবৈধ বালু ভরাটের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেন।তারপরও স্থানীয় সুবিধাভোগী কিছু অসৎ ব্যাক্তির মাধ্যমে প্রশাসনকে পক্ষে নিয়ে ভালু ভরাটের পায়তারা করে কোম্পানিটি।প্রতিবার স্থানীয় জনগণের বাধা ও গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের ভিত্তিতে বালু ভরাট বন্ধ করতে বাধ্য হয় ইউনিক গ্রুপ।তারপরও প্রায় ১০০ বিঘা জমি অবৈধ ভাবে ভরাটকরে দখলে নেয় কম্পানীটি।সর্বশেষ ১লা জানুয়ারি স্থানীয় ভূমিদস্যু ছয়িস্যা গ্রামের শাহ্ জালাল ওরফে শাহ্ দালালের সহযোগিতায় পুনরায় বালু ভরাটের কাজ শুরু করে কোম্পানিটি।পরে এলাকাবাসী ক্ষিপ্ত হয়ে একাধিকবার বাধা দিলে জনগণের উপর হামলা করে শাহ্ জালালের পালিত মাদক ব্যাবসায়ী একদল সন্ত্রাসী।সংবাদটি বিভিন্ন গণমাধ্যমে গুরেত্বের সাথে প্রকাশিত হলেও আইনগত কোন ব্যাবস্থা গ্রহণ করেনি স্থানীয় প্রশাসন। উল্টো ভুক্তভোগী কৃষকদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে।সর্বশেষ সরজমিনে দেখা যায় উচ্চ আদালতের রায়কে বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করে সোনারগাঁ থানা পুলিশের সহযোগিতায় চলছে অবৈধ বালু ভরাটের কাজ।এ বিষয় সোনারগাঁ থানার ওসি মঞ্জুর কাদের পিপিএম একদম নীরব ভূমিকা পালন করছেন।এলাকাবাসীর অভিযোগ ওসি মঞ্জুর কাদের অসাধু কোম্পানিটির কাছ থেকে মোটা অংক হাতিয়ে নিয়ে জনগণের বিপক্ষে অবস্থান করছেন। কান্দারগাঁও গ্রামের ভুক্তভোগী জমির মালিক এনায়াতুল্লাহ মোল্লা (কাজী) ও আব্দুল মান্নান বলেন,উচ্চ আদালত যাদের কাছে হার মেনে গেছেন,আমরা তাদের হাত থেকে কিভাবে রক্ষা পাবো?আজ কেন যেন মনে হচ্ছে ১৯৭১ সালে জীবন বাজী রেখে স্বাধীনতা সংগ্রামটা করাই হয়তো ছিল আমাদের জীবনের বড় ভুল।তাই যদি না হত,আজ নিজের জমিতে নিজে চাষ করতে পারছি না কেন? 
সোনারগাঁ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু নাছের ভূইয়াকে গত কয়েকদিনে কার্যলয়ে পাওয়া যায়নি। এমনকি মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে পাওয়া যায়নি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ