ঢাকা, শুক্রবার 20 January 2017, ৭ মাঘ ১৪২৩, ২১ রবিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

কুষ্টিয়ায় পুলিশের সাথে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত নিহত

কুষ্টিয়া সংবাদদাতা : কুষ্টিয়ার আলামপুরে পুলিশের সাথে বন্দুকযুদ্ধে আমিরুল ইসলাম নামে এক ডাকাত নিহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ একটি এলজি, কয়েকরাউন্ড গুলী ও ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করেছে। গত বুধবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের আলামপুর এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। 

কুষ্টিয়া ডিবি পুলিশের ওসি সাব্বিরুল ইসলাম জানিয়েছেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর আসে সদর উপজেলার কুষ্টিয়া-ঝিনাইদহ মহাসড়কের আলামপুরে সড়কে ডাকাতির জন্য একদল ডাকাত অবস্থান নিয়েছে। এমন সংবাদের ভিত্তিতে আলামপুর ক্যাম্প পুলিশ ও ডিবি পুলিশের ফোর্স ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ডাকাত দল পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলী ছোঁড়ে। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলী ছুঁড়া শুরু করে। প্রায় ৩০ মিনিটব্যাপী গুলীবিনিময় চলে। গুলীবিনিময় শেষে ঘটনাস্থল থেকে গুলীবিদ্ধ এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। পরে খোঁজ খবর নিয়ে জানা যায়, মৃতব্যক্তি চরমপন্থী নেতা কসাই সিরাজের সেকেন্ড ইন কমান্ড ও তার ছোট ভাই আমিরুল ইসলাম। সে আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সদস্য। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি এলজি, কয়েক রাউন্ড গুলী ও ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার বারমাইলে ট্রাক-সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে মাসুম লাল (২৭) ও বিজয় লাল (৩০) নামের দুই জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে জয়নাল ও সেবা নামের আরও দুই জন। গত বুধবার রাত ১১টার দিকে কুষ্টিয়া-পাবনা মহাসড়কের বারমাইল নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটনা ঘটে। 

পুলিশ ও নিহতের পরিবার জানায়, রাতে কুষ্টিয়া শহরের বড়বাজার চৈতন্য পল্লী থেকে বিয়ের লগন নিয়ে সিএনজি করে ঈশ্বরদী যাচ্ছিলেন বিজয় লাল, মাসুম লাল ও সেবা। ভেড়ামারা বারোমাইল পৌঁছলে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি দ্রুতগামী ট্রাক সিএনজিকে ধাক্কা দিলে সবাই রাস্তায় ছিটকে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলেই মাসুম লাল মারা যান। পরে স্থানীয়রা সিএনজি চালক জয়নাল, বিজয় লাল ও সেবাকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিজয় লাল (৩০) মারা যান।

কুষ্টিয়া হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আব্দুর জব্বার হতাহতের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, নিহত দুইজনের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। 

নিহত বিজয় লাল বড় বাজার চৈতন্য পল্লীর ইন্দোলালের ছেলে এবং নিহত মাসুম লাল একই এলাকার মুন্না লালের ছেলে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ