ঢাকা, বুধবার 25 January 2017, ১২ মাঘ ১৪২৩, ২৬ রবিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ব্রিটেনে স্কার্ফ পড়ায় ৪ বছরের শিশুকে ক্যাথলিক স্কুল থেকে বহিষ্কার

২৪ জানুয়ারি, মিরর : ব্রিটেনের একটি রোমান ক্যাথলিক স্কুল থেকে স্কার্ফ পড়ার দায়ে চার বছরের একটি কন্যা শিশুকে বহিস্কার করা হয়েছে। এ বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিতর্কের ঝড় তুলেছে। হ্যান্ডসওয়ার্থের সেন্ট ক্লেয়ারস স্কুলে এ ঘটনা ঘটে। স্কুলটির ইউনিফর্ম নীতি বেশ কড়া। অভিভাবকদের জানিয়ে দেওয়া হয়েছে এধরনের ইসলামি স্কার্ফ বা মাথায় কোনো ধরনের কাপড় সহ্য করা হবে না। তবে বিষয়টি নিয়ে সিনিয়র কাউন্সিলর ও নারী অধিকার নিয়ে যারা কাজ করেন তাদের মধ্যে বিতর্ক ও বিভক্তি সৃষ্টি হয়েছে। তারা ফেসবুক ও টুইটারে এধরনের সিদ্ধান্ত নিয়ে নিজেদের অভিমত দিচ্ছেন।
শিশুটির পিতা জাফর বার্মিংহাম সিটি কাউন্সিলের লেবার ক্যাবিনেট সদস্যের কাছে ধর্মীয় পোশাক পড়ার ক্ষেত্রে সাম্য কামনা করে হস্তক্ষেপ চেয়েছেন। জাফর স্কুলটির হেডটিচারের সঙ্গে দেখা করে বলেছেন, স্কার্ফ পড়তে না দেওয়ায় ব্রিটেনের সমাজে বৈষম্যের বিরুদ্ধে যে আইন রয়েছে তা তার বিরুদ্ধে চলে গেছে। তবে ক্যাবিনেট সদস্য ও কাউন্সিলর মাজিদ মাহমুদ বলেছেন, সেন্ট ক্লেয়ারস স্কুলটির কর্তৃপক্ষ হয়ত তাদের ধর্মীয় বিশ্বাসের কারণেই ইসলামি স্কার্ফ পড়তে শিশুটিতে বাধা দিচ্ছে. এক্ষেত্রে স্কুলটি যদি ইসলামিক বা মুসলমানদের হত তাহলে এধরনের ঘটনা সেখানে ঘটত না।
বার্মিংহাম সিটি কাউন্সিলের সাবেক সাম্য প্রধান মাসুখ আলি বলছেন, শিশুদের ক্ষেত্রে এধরনের স্কার্ফ পড়া ধর্মেও বাধ্যতামূলক নয়। যে কোনো স্কুল তাদের নিজস্ব ইউনিফর্ম নীতি রক্ষা করবে এবং তা বৈষম্য আইনের পর্যায়ে পড়ে না। তবে খ্রিস্টান স্কুলগুলোতে আরো অধিকহারে মুসলিম শিশু পড়তে গেলে অভিভাবকরা বিষয়টি নিয়ে কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করতেই পারে। তাছাড়া যে কোনো মুসলিক অভিভাবকতে কোনো রোমান ক্যাথলিক স্কুলে নিজের বা”চাকে ভর্তি করার আগে স্কুলটির ইউনিফর্ম কোড নিয়ে অবশ্যই ভাবতে হবে। এনিয়ে আলোচনা অভিভাবক ও কর্তৃপক্ষের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকা উচিত, রাজনৈতিক বা সামাজিকভাবে বিষয়টি নিয়ে কোনো আলোচনা না হওয়াই ভাল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ