ঢাকা, বৃহস্পতিবার 26 January 2017, ১৩ মাঘ ১৪২৩, ২৭ রবিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

চলনবিলে ইরি-বোরো রোপণে কৃষকরা ব্যস্ত সময় পার করছেন

তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) সংবাদদাতা: চলনবিলে চলছে ইরি-বোরো ধান রোপণের ধুম। শস্যভান্ডার  বলেখ্যাত এই চলনবিলে পৌষের মাঝামাঝি থেকে  শুরু  হয়েছে  ইরি বোরো ধানের চারা রোপণের কাজ।  কৃষকেরা এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন ধান রোপণে। তাড়াশ  উপজেলার কৃষি অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, চলতি বছরে উপজেলার ৮ ইউনিয়নে ২২ হাজার ৭শ ৫০ হেক্টর জমিতে ইরি বোরো চাষের  লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এর মধ্যে আগাম ইরি-বোরো চাষের জন্য ১২৫০ হেক্টর জমিকে নির্ধারণ করা হয়েছে। এই লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হবে এমনটাই আশা করছেন কৃষি অফিস তাড়াশ।
চলনবিলের তাড়াশ উপজেলার হামকুড়িয়া গ্রামের আলাউদ্দিন  জানান, এবার আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় আগাম ইরি-বোরো ধান রোপণে সহজ হয়েছে। তিনি আরো জানান, খুব হাতের নাগালেই ধান রোপণের শ্রমিক পাওয়ায় তারা খুশি।
তাড়াশ উপজেলা কৃষি অফিসার মোঃ সাইফুল ইসলাম বলেন, ইতিমধ্যে কৃষকরা আগাম ইরিবোরো চাষাবাদে মাঠে নেমেছেন। বন্যার পানি আগেই নেমে যাওয়ায় চলনবিলের পুরো এলাকা রবিশস্যর উপযোগী হওয়ায় কৃষকরা সবস্তরে সরিষার আবাদ করেছেন। চলনবিলের দিগন্ত মাঠ জুড়ে সরিষা ফুলের সমারোহে চোখ জুরিয়ে যাচ্ছে। রবিশস্য উঠতে আর মাত্র কয়েকদিন লাগবে। এরপরই সরিষার জমিতে ইরি-বোরো চাষ করবে কৃষকরা। প্রকৃতিক কোন দুর্যোগ না হলে উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা অর্জন হবে আশা করছি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ