ঢাকা, শুক্রবার 3 February 2017, ২১ মাঘ ১৪২৩, ৫ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

চন্দনাইশের মাঠে মাঠে এখন শীতকালীন সবজির সমারোহ

চন্দনাইশ (চট্টগ্রাম)সংবাদদাতা: উপজেলার দোহাজারী, ধোপাছড়ি, বৈলতলী, হাশিমপুর, বরমা, কাঞ্চননগর, সাতবাড়ীয়া, জোয়ারা সহ বিভিন্ন এলাকার মাঠে-ময়দানে শীতকালীন সবজির বাহার ফলন। কৃষকেরা বেজায় খুশি। দামও রয়েছে প্রচুর।
সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার শঙ্খ তীরবর্তী দোহাজারী, ধোপাছড়ি, বৈলতলী, পাহাড়ি এলাকা হাশিমপুর, কাঞ্চননগর, সমতল এলাকা বরকল, বরমা, সাতবাড়ীয়া, জোয়ারা সহ বিভিন্ন এলাকায় প্রচুর শীতকালীন সবজির ফলন হয়েছে। এর মধ্যে শিম, আলু, বরবটি, ফুলকপি, বাঁধাকপি, মরিচ, টমেটো, বেগুন, মিষ্টি লাউ, চিচিঙ্গা সহ বিভিন্ন প্রজাতির শীতকালীন সবজির প্রচুর ফলন হয়েছে। যেদিকে চোখ যায় সবুজ আর সবুজ মাঠে চোখ জুড়িয়ে যায়। কথায় আছে “এক ক্ষেতে তুলে, আরেক পুতে তুলে”-এ বাক্যটা এখন চন্দনাইশের বিভিন্ন বিলে যথার্থ প্রমাণিত হচ্ছে। যেদিকে চোখ যায়, শুধু শীতকালীন সবজি আর সবজি। চন্দনাইশের উৎপাদিত সবজি চন্দনাইশসহ দক্ষিণ চট্টগ্রামের চাহিদা মিটিয়ে চট্টগ্রাম সহ বিভিন্ন জায়গায় যাচ্ছে। প্রতিদিন সকালে দোহাজারী রেলওয়ে মাঠে শত শত কৃষক তাদেরা উৎপাদিত সবজি বিক্রি করে নিজ এবং এলাকার চাহিদা মিটিয়ে চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন এলাকায় নিয়ে যাচ্ছে পিকআপ ভ্যানে করে। শীতকালীন সবজি বাজারে আসায় স্বস্তি নেমেছে ক্রেতাদের মাঝে। বিপুল পরিমাণ শীতকালীন সবজি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে। তবে দামও প্রচুর থাকায় কৃষকেরা বেজায় খুশি। এলাকার উৎপাদিত সবজি বাজারে সরবরাহ হওয়ায় সবজির চাহিদা মিটাচ্ছে।
জানা যায়, প্রতি কেজি ফুলকপি ৩০ টাকা, বেগুন ৩০ টাকা, পেপে ২৫ টাকা, শিম ৪০ টাকা, মিষ্টি কুমড়া ৩৫ টাকা, বাধাকপি ২০ টাকা, লাউ প্রতিটি ২০ টাকা, টমেটো ৩০ টাকা, কাঁচা মরিচ ৩০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে। শীত পুরো আসায় শীতের সবজিতে এখন ভরপুর চন্দনাইশের বিভিন্ন কাঁচা বাজারে। প্রতিদিন বাড়ছে সবজির সরবরাহ। সরবরাহ বাড়লেও দাম রয়েছে যথার্থ

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ