ঢাকা, মঙ্গলবার 25 September 2018, ১০ আশ্বিন ১৪২৫, ১৪ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

সাগরতলে পুরনো মহাদেশের সন্ধান!

অনলাইন ডেস্ক: ভারত মহাসাগরের তলদেশে পুরোনো মহাদেশের অস্তিত্ব পেয়েছেন বলে দাবি করেছেন গবেষকরা। 

গবেষকরা দাবি করেছেন, মহাদেশটি ৩০০ কোটি বছরের পুরোনো। 

গত ৩১ জানুয়ারী ন্যাচার জার্নালে প্রকাশিত গবেষণা প্রতিবেদনে এই দাবী করা হয়, ভারত মহাসাগরের দ্বীপরাষ্ট্র মরিশাসের কাছে সাগরতলে ওই মহাদেশের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে।

গবেষকদের দাবি, এটা ‘হারিয়ে যাওয়া মহাদেশ’। কোটি কোটি বছর আগে বিলুপ্ত হয়ে যাওয়া গন্ডোয়ানা মহাদেশের একটি অংশ বলে দাবি করছেন তাঁরা। এর যুক্তি হিসেবে রঙিন গোমেদ পাথর যা জারকন নামে পরিচিত তাকেই তুলে ধরেছেন তাঁরা। গবেষকদের দাবি, বৈচিত্র্যময় ওই পাথরের চিহ্নের উপস্থিতিই প্রমাণ করে দেয় এটি মহাদেশের অংশ। আর গন্ডোয়ানা শেষ হয়ে যাওয়ার পর থাকা চিহ্ন।

গন্ডোয়ানা প্রাচীন একটি মহাদেশের নাম। দক্ষিণ গোলার্ধের বেশির ভাগ ভূভাগ এই মহাদেশের অন্তর্ভুক্ত ছিল। 

দক্ষিণ আফ্রিকার উইটওয়াটারস্রান্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূ-তত্ত্ববিদ লুইস অ্যাশওয়াল জানান, মরিশাসের কাছে সাগরতলে যে জারকন (গোমেদ পাথর) পাওয়া যায়, এতে বোঝা যাচ্ছে এলাকাটি মহাদেশের কোনো অংশ।

বলা হয়, ভারত মহাসাগরের দ্বীপ মরিশাসের জন্ম হয় আগ্নেয়গিরির কারণে। নতুন ওই গবেষণায় দেখা যাচ্ছে, ২০ কোটি বছর আগে যখন গন্ডোয়ানা প্রদেশ ভেঙে যায়, তখন ওই মহাদেশটি থেকে যায়। আর বহু বছর পর এর অস্তিত্ব খুঁজে পাওয়ার দাবি করলেন গবেষকরা।

ডি.স/আ.হু

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ