ঢাকা, সোমবার 6 February 2017, ২৪ মাঘ ১৪২৩, ৮ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক গোল্ডকাপ ফুটবল মার্চে

স্পোর্টস রিপোর্টার: বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট মার্চ মাসের শেষভাগে আয়োজনের পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। বছরের শুরু তেই বাফুফে ঘোষিত ক্যালেন্ডারে ১১ থেকে ২৩ মার্চ টুর্নামেন্টর দিনক্ষন উল্লেখ থাকলেও বাস্তবতার নিরিখে তা পিছাতে হচ্ছে বলেই জানালেন বাফুফে সেক্রেটারি আবু নাইম সোহাগ। টুর্নামেন্ট কয়েক দিন পিছিয়ে যাওয়ার কারণ আরেকটি আন্তর্জাতিক আসর। চট্টগ্রাম আবাহনী আয়োজিত দ্বিতীয় শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপ শুরু হবে ১৮ ফেব্রুয়ারি। চলবে ২ মার্চ পর্যন্ত। একটি টুর্নামেন্ট শেষ করে আরেকটি আয়োজনের সুবিধার্থেই কিছুদিন পিছিয়ে যেতে পারে। বাফুফে এ মুহুর্তে ব্যস্ত শেখ কামাল আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট নিয়ে। যে কারণে বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের পালে হাওয়া লাগেনি সেভাবে। আয়োজনের প্রস্তুতির গতিও আসেনি সেভাবে। তবে বাফুফে সাধারণ সম্পাদকের দাবি ‘আমরা বসে নেই। অনেক কাজই গুছিয়ে এনেছি। বিভিন্ন দেশের সঙ্গে মৌখিক আলোচনাও চলছে। তাদের সংকেত পেলেই আনুষ্ঠানিক আমন্ত্রণপত্র পাঠানো হবে।’ শেখ কামাল টুর্নামেন্ট যেহেতু ক্লাব দলগুলো খেলছে তাই বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপে বিভিন্ন দেশের জাতীয় দলকে খেলানোর পরিকল্পনা বাফুফের।
এব্যাপারে সোহাগ বলেন,‘আমরাতো সব সময়ই চাই বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপে ভালো মানের দল আসুক। আমরা জাতীয় দলকে প্রাধান্য দিয়েই দেশগুলোকে আমন্ত্রণ জানাই।তারপরও অনেক দেশ পূর্ণ শক্তির দল পাঠায় না। এবার আমরা চাইবো-জাতীয় দল না হলেও যেন অলিম্পিক দল পাঠানো হয় এ টুর্নামেন্টে’।কোন কোন দেশের সঙ্গে আলোচনা হচ্ছে তা অবশ্য খোলাসা করেননি আবু নাইম সোহাগ ‘সর্বশেষ আসরে যে দলগুলো অংশ নিয়েছে তারাসহ আরো বেশ কিছু দেশের সঙ্গে আমাদের আলোচনা চলছে। দক্ষিণ এশিয়ার কোন কোন দেশ থাকতে পারে সে বিষয়টি সভাপতি দেখছেন। আশা করি কয়েকদিনের মধ্যে সভাপতি টুর্নামেন্টের সর্বশেষ অগ্রগতি জানাবেন।’বাংলাদেশ থেকে দুটি দল খেলবে কিনা তা এখনো ঠিক হয়নি। এমন কি কয়টি ভেন্যুতে হবে তাও না। এ প্রসঙ্গে বাফুফে সাধারণ সম্পাদক বলেছেন,‘আমরা কয়টি দল পাঠাবো তা সহসাই ঠিক হবে। কারণ টুর্নামেন্ট হবে ৮ দল নিয়ে। আমরা কয়টি দল রাখবো তার উপর নির্ভর করছে অতিথি দলের সংখ্যা। এবার আমরা শুধু ঢাকাতে টুর্নামেন্ট করার বিষয়ে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছি। আবার এমনও হতে পারে, কিছু ম্যাচ ঢাকার বাইরেও হবে। এসব কিছু চূড়ান্ত করতে আরো কিছুদিন সময় লাগবে।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ