ঢাকা, রোববার 26 February 2017, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৩, ২৮ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

রাহুল গান্ধী নালায়েক

২৫ ফেব্রুয়ারি, ইন্টারনেট : ভারতে কংগ্রেসের শীর্ষ নেত্রী শীলা দীক্ষিতের মন্তব্যের পর কংগ্রেস সহ-সভাপতিরাহুল গান্ধীকে কটাক্ষ করল ক্ষমতাসীন বিজেপি। কেন্দ্রের শাসক দলের কটাক্ষ, শীলা যা বলেছেন, তা মানুষ আগে থেকেই জানেন। এদিন তিনি তা স্বীকার করেছেন মাত্র।
শুক্রবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, দেরিতে হলো, তবে শেষপর্যন্ত স্বীকারোক্তি এলো। দেশবাসী তা বহু আগে থেকেই জানেন। আমি শীলাজিকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি সত্যিটা স্বীকার করার জন্য।
বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ আবার আক্রমণ করেন শীলা দীক্ষিতকে। তার প্রশ্ন, রাহুল যদি অপরিণতই হবেন, তাহলে কেন তাকে উত্তরপ্রদেশের দায়িত্ব দেয়া হলো? এক সর্বভারতীয় দৈনিককে দেয়া সাক্ষাৎকারে কংগ্রেস সহ-সভাপতি সম্পর্কে দিল্লির সাবেক মুখ্যমন্ত্রী শীলা দীক্ষিত বলেন, রাহুল এখনো পরিণত নন, কারণ ওনার বয়স চল্লিশের কোঠায়। ওনাকে আরো সময় দেওয়া দরকার।
শুধু বিজেপি নয়। শীলা দীক্ষিতের মন্তব্য নিয়ে রাহুলকে আক্রমণ করেছে বিশ্ব হিন্দু পরিষদও (ভিএইচপি)। তাদের কটাক্ষ, রাহুল যথেষ্টই ‘পরিণত’। তিনি ভারতকে ‘কংগ্রেস-মুক্ত’ করতে মহাত্মা গান্ধীর স্বপ্নকে পূর্ণ করতে উদ্যোগ নিয়েছেন।
এদিন দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুরেন্দ্র জৈন বলেন, ১৯৪৭ সালে মহাত্মা গান্ধী প্রস্তাব দিয়েছিলেন কংগ্রেসকে ভেঙে ফেলার। এখানে রাহুল মহাত্মার স্বপ্নকে সার্থক করার কাজ করে চলেছেন। এর জন্য তাকে (রাহুল) ধন্যবাদ জানানো প্রয়োজন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ