ঢাকা, শনিবার 11 March 2017, ২৭ ফাল্গুন ১৪২৩, ১১ জমাদিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

মিয়ানমারের বিরুদ্ধে  ৮ জেলেকে ধরে  নেয়ার অভিযোগ

সংগ্রাম ডেস্ক : বঙ্গোপসাগর থেকে মিয়ানমারের নৌবাহিনীর সদস্যরা বাংলাদেশী আট জেলেকে ধরে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

 সেন্টমার্টিনের মৌলভীর শিল পয়েন্ট থেকে বৃহস্পতিবার রাতে একটি মাছ ধরার ট্রলার ডুবিয়ে দিয়ে তাদের ধরে নেয়া হয় বলে এক ট্রলার মালিকের অভিযোগ। বিডিনিউজ।

বিজিবির টেকনাফ ২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আবুজার আল জাহিদ বলেন, শুক্রবার সকালে ট্রলার মালিকের অভিযোগ পেয়ে মিয়ানমারের বিজিপির সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তারা আটকের তথ্য জানাতে পারেনি।

ট্রলার মালিক আবুল হোসেন টেকনাফের সাবরাং ইউনিয়নের শাহ পরীর দ্বীপের বাসিন্দা।

তিনি বলেন, তার ট্রলারে করে বৃহস্পতিবার রাতে সেন্টমার্টিনের দক্ষিণে মৌলভীর শিল পয়েন্টে মাছ ধরছিলেন আট জেলে।

“মিয়ানমারের নৌবাহিনীর সদস্যরা একটি জাহাজে করে এসে জেলেদের ধাওয়া দেয়। বাংলাদেশী জেলেদের কয়েকটি ট্রলার পালিয়ে আসতে সক্ষম হলেও আমার ট্রলারটিকে তারা ধাক্কা দিয়ে ডুবিয়ে দেয়। পরে জেলেদের জাহাজে তুলে নিয়ে যায় মিয়ানমারের নৌবাহিনী।”

আট জেলে হচ্ছেন - আব্দু রশিদ (৩৮), সৈয়দ করিম (৪২), নূর হাসান (২৭), মোহাম্মদ উল্লাহ (৫৫), জামাল হোসেন (৪০), দিল মোহাম্মদ (৩৬), মোহাম্মদ সাদেক (৩৫) ও মোহাম্মদ জাকেরকে (৫৫)।

তারা সবাই টেকনাফের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা বলে জানান ট্রলার মালিক আবুল হোসেন।

এ বিষয়ে বিজিবি কর্মকর্তা জাহিদ বলেন, জেলেরা শূন্যরেখা অতিক্রম করে মিয়ানমারের অভ্যন্তরে সাগরে মাছ ধরছিলেন।

“ট্রলারের মালিক বিজিবি ও স্থানীয় প্রশাসনকে জানিয়েছে। জেলেদের ছাড়িয়ে আনতে মিয়ানমারের বিজিপির সঙ্গে যোগাযোগ অব্যাহত রাখা হয়েছে।”

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ