ঢাকা, বুধবার 29 March 2017, ১৫ চৈত্র ১৪২৩, ২৯ জমাদিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ইসরাইল থেকে ৮০০০ অ্যান্টি-ট্যাংক মিসাইল কিনছে ভারত

২৮ মার্চ, ইন্টারনেট : ইসরাইলের কাছ থেকে আট হাজারেরও বেশী নতুন মিসাইল কিনছে ভারত। এ বিষয়ে ইজরাইলের রাফায়েল ডিফেন্স কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করেছে ভারত।
কথিত শত্রুদের ট্যাংকে আঘাত হানতে কেনা হচ্ছে এইসব ‘স্পাইক’ মিসাইল। এগুলো সবই ইজরাইলে তৈরি ল্যান্ড-টু ল্যান্ড মিসাইল। এগুলো সবই ‘ফায়ার এন্ড ফরগেট’ সিস্টেমে তৈরি। এই মিসাইলেরই কয়েকটি মিসাইল ‘ফায়ার, অবসারভ এন্ড আপডেট’ ভার্সানও রয়েছে।
আগামী শুক্রবারের মধ্যেই এই চুক্তির অনুমোদন দেবে ভারতের কেন্দ্রের নিরাপত্তা সংক্রান্ত ক্যাবিনেট কমিটি। এরপর মাসখানেকের মধ্যে চুক্তি সম্পূর্ণ করতে যাচ্ছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়।
এই চুক্তি অনুযায়ী, ১০০ কোটি খরচে ৩২১টি স্পাইক লঞ্চার ও ৮,৩৫৬টি অ্যান্টি ট্যাংক গাইডেট মিসাইল কিনতে যাচ্ছে ভারত। পাঁচ বছরের মধ্যেই এগুলো ভারতে আসবে।
এর আগে ২০১৪ সালে ৮০০০ স্পাইক অ্যান্টি ট্যাংক মিসাইল ও ৩০০টি লঞ্চার কিনতে ভারত খরচ করেছিল প্রায় ৫৩ কোটি টাকা। ৪, ৮ ও ২৫ কিলোমিটার রেঞ্জে আঘাত করতে পারে স্পাইক লঞ্চার।
কিছুদিন আগেই এক বড়সড় চুক্তি হয় ভারত ও ইসরাইলের মধ্যে। যৌথ উদ্যোগে একটি সারফেস-টু-এয়ার মিসাইল তৈরির জন্য ইজরাইলের সঙ্গে ১৭০০০ কোটি টাকার চুক্তি করে ভারত। পুরো প্রজেক্টটি ভারতের ডিআরডিও ও ইজরাইলি এয়ারক্রাফট ইন্ডাস্ট্রির তত্ত্বাবধানে হবে। ২০১৭ সালে ভারত-ইজরাইলের মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্কের ২৫ বছর পূর্ণ হচ্ছে। বিষয়টি মাথায় রেখে চলতি বছরেই ইজরাইল সফরেও যাবেন নরেন্দ্র মোদী।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ