ঢাকা, বুধবার 29 March 2017, ১৫ চৈত্র ১৪২৩, ২৯ জমাদিউস সানি ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

কুরবানি পর্যন্ত হাজারীবাগে থাকতে ট্যানারি মালিকদের আবেদন

 

গতকাল ট্যানারি মালিকদের পক্ষে আইনজীবীরা শুনানিতে অংশ নেন।

আদালতে ট্যানারি মালিকদের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপস, ব্যারিস্টার মেহেদী হাসান চৌধুরী। তাদের সহযোগিতা করেন ব্যারিস্টার উপমা বিশ্বাস ও আইনজীবী স্বপ্নীল ভট্টাচার্য। সরকার পক্ষে ছিলেন ডেপুটি এটর্নি জেনারেল কাজী জিনাত হক। রিট আবেদনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী সৈয়দ রিজওয়ানা হাসান।

আইনজীবী রিজওয়ানা হাসান বলেন, কুরবানির ঈদ পর্যন্ত কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার অনুমতি চেয়ে ট্যানারি মালিকদের দুইটি সংগঠন গত বৃহস্পতিবার একটি আবেদন করে। আদালতে আবেদনকারীদের পক্ষে শুনানি হয়েছে। বুধবার আমরা শুনানি করবো।

বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতির (বেলা) আবেদনের প্রেক্ষিতে গত ৬ মার্চ রাজধানীর হাজারীবাগের সব ট্যানারি কারখানা অবিলম্বে বন্ধের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে কারখানাগুলোর বিদ্যুৎ, গ্যাস ও পানি বিচ্ছিন্ন করাসহ সব সুযোগ-সুবিধা বন্ধ করে দেয়ার নির্দেশ দেন আদালত। এরপর গত ১২ মার্চ ট্যানারি কারখানা বন্ধের হাইকোর্টের নির্দেশ বহাল থাকে আপিল বিভাগে। এর প্রেক্ষিতে ট্যানারি মালিকরা আগামী ঈদুল আযহা পর্যন্ত রাজধানীর হাজারীবাগে কার্যক্রম চালিয়ে যেতে হাইকোর্টে আবেদন করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ