ঢাকা, মঙ্গলবার 11 March 2017, ২৮ চৈত্র ১৪২৩, ১৩ রজব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

মুফতি হান্নানসহ  সহযোগির ফাঁসির  চিঠি কারাগারে

স্টাফ রিপোর্টার : মুফতি আব্দুল হান্নান ও তার সহযোগী শরীফ শাহেদুল বিপুলের প্রাণভিক্ষার আবেদন রাষ্ট্রপতি নাকচ করার চিঠি পৌঁছেছে কারাগারে।

গাজীপুরের কাশিমপুর হাইসিকিউরিটি কারাগারের জ্যেষ্ঠ সুপার মো. মিজানুর রহমান জানান, হান্নান ও বিপুলের প্রাণ ভিক্ষার আবেদন রাষ্ট্রপতি নাকচ করেছেন - সেই চিঠি কারাগারে পৌঁছেছে। “চিঠিতে জেলকোড অনুযায়ী পরবর্তী পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে। এখন বিধি মোতাবেক তাদের ফাঁসি কার্যকরের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।” গতকাল সোমবার দুপুরে এক চিকিৎসক মুফতি হান্নানের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করেছেন বলে জানান জ্যেষ্ঠ সুপার মিজানুর। কারা কর্তৃপক্ষ এই চিঠি পাওয়ার পর ফাঁসি কার্যকর করার পথে আর কোনো বাধা নেই।

ব্রিটিশ হাই কমিশনার আনোয়ার চৌধুরীর ওপর গ্রেনেড হামলা চালিয়ে তিনজনকে হত্যার মামলায় মৃত্যুদন্ডের রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন নাকচ হয়ে যাওয়ায় অপরাধ স্বীকার করে রাষ্ট্রপতির কৃপা প্রার্থনাই ছিল এই তিন জঙ্গির প্রাণ বাঁচানোর শেষ সুযোগ। সেই সুযোগ নিতে গত ২৭ মার্চ কারা কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষার আবেদন করেছিলেন তারা। কারাবন্দীদের ক্ষমার আবেদন কারা কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় হয়ে যায় আইন মন্ত্রণালয়ে। আইন মন্ত্রণালয়ের মতামত নিয়ে তা রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ে যায়। রাষ্ট্রপতি তার সিদ্ধান্ত দেওয়ার পর ওই নথি ফিরে আসে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে। গতকাল সোমবার বেলা ১টার দিকে হান্নান ও বিপুলের প্রাণ ভিক্ষার আবেদন রাষ্ট্রপতি নাকচ করার চিঠি কাশিমপুর হাই সিকিউরিটি কেন্দ্রীয় কারাগারে পৌঁছায়।

অপর জঙ্গি দেলোয়ার হোসেন রিপনেরও প্রাণ ভিক্ষার আবেদন নাকচ করেছেন রাষ্ট্রপতি। সিলেট কারাগারে থাকা রিপনের চিঠি গতকাল বেলা পৌনে ৩টা পর্যন্ত সিলেটে পৌঁছায়নি বলে জানিয়েছেন জ্যেষ্ঠ কারাগার সুপার ছগির মিয়া।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ