ঢাকা, রোববার 16 April 2017, ৩ বৈশাখ ১৪২৩, ১৮ রজব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ছাগলনাইয়ায় হিজড়াদের দৌরাত্ম্য পুলিশ নীরব

ছাগলনাইয়া সংবাদদাতা: সম্প্রতি ছাগলনাইয়া উপজেলায় হিজড়াদের উৎপাত বেড়ে গেছে। উপজেলাবাসী এদের কাছে অসহায়। আইন শৃংখলা বাহিনী কোন রকম নিয়ন্ত্রনের পদক্ষেপ নিচ্ছেন না। ফলে এ উপজেলার পাড়া-মহল্লা থেকে শুরু করে অভিজাত আবাসিক এলাকাগুলোতে এখন হিজড়া আতংক ছড়িয়ে পড়েছে। নানা অপরাধে জড়িয়ে পড়ছে হিজড়ারা। চাঁদাবাজি, মাদক ব্যবসা, পতিতাবৃত্তি, মারামারিসহ নানা ধরনের অপরাধের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ছে তারা। সূত্র জানায়, তারা আবার সন্ত্রাসীদেরও আশ্রয় দিয়ে থাকে। হিজড়া হওয়ার কারণে এরা এমনিতেই সাধারন মানুষের সহানুভূতি পাচ্ছে। আর  এ সূযোগে তারা আাইনশৃংখলা বাহিনীকেও পাত্তা দিচ্ছেনা। ফলে সাধারন মানুষের উপর তাদের অত্যাচার বেড়েই চলছে। উপজেলার সকল ইউনিয়নে দিনে–রাতে তাদের অবাধ বিচরন ও অপকর্ম বাড়ছেই।  বিশেষ করে কোন কোন জায়গায় আস্তানা গেড়ে, একশ্রেণীর  খারাপ চরিত্রের লোকদের সাথে অর্থের বিনিময়ে পতিতাবৃত্তিতে জ্বড়িয়ে পড়ছে। সরেজমিনে ঘুরে জানাযায়, বিশেষকরে, বিয়ে বাড়িতে, কমিউনিটি সেন্টারগুলোতে বিয়ের দিন  তারা দল বেঁধে প্রবেশকরে বর পক্ষ অথবা কনে পক্ষকে নাজেহাল ও বাধ্য করে ২ হাজার থেকে ৫ হাজার টাকা পর্যন্ত জোর করে চাঁদা আদায় করে থাকে। সমগ্র জেলা ও উপজেলাব্যাপী তাদের নাকি শক্তিশালী সিন্ডিকেড রয়েছে ।এছাড়া তারা পথে প্রান্তরে মানুষের সাথে অনাকাংখিত আচরণ করে থাকে। যা অসহনীয় বলে জানালেন কয়েকজন পথচারী। বিষয়টিকে কেউই নজর নিচ্ছেনা ,কি উপায়ে তাদের ঝামেলা এড়ানো যায়। এদেরকে কৌশলে নিয়ন্ত্রন করতে সক্ষম না হলে এ উপজেলার শান্তিশৃংখলা নষ্ট হওয়ার সম্ভাবনা থেকে যা্েচ্ছ,যা পরবর্তিতে সকলকেই পোহাতে হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ