ঢাকা, রোববার 16 April 2017, ৩ বৈশাখ ১৪২৩, ১৮ রজব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

সমুদ্র মানচিত্রের দ্বিতীয় সংস্করণ প্রকাশ করলো চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়

চট্টগ্রাম অফিস: দেশের সমুদ্র সীমার প্রথম সমন্বিত মানচিত্রের পর এবার এর দ্বিতীয় সংস্করণ প্রকাশ করলো চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়।
১১ এপ্রিল বেলা ১.৩০ টায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরীর কাছে তার অফিস কক্ষে উক্ত মানচিত্রের কপি হস্তান্তরের মাধ্যমে একে উন্মোচিত করা হয়।
এ সময় চ.বি. ইনস্টিটিউট অব মেরিন সায়েন্সেস এন্ড ফিশারিজের প্রফেসর ও উক্ত মানচিত্র প্রনয়ণকারী প্রফেসর সাইদুর রহমান চৌধুরী, উক্ত ইনস্টিটিউটের পরিচালক  জাহেদুর রহমান চৌধুরী, প্রফেসর ড. মো. শাহাদাত হোসেন ও সহযোগী অধ্যাপক ড. এস.এম. শরীফুজ্জামান উপস্থিত ছিলেন।
উপাচার্য  বলেন, ২০১৪ সালে আন্তর্জাতিক আদালতের রায়ের মাধ্যমে বাংলাদেশ যে সমুদ্রসীমা জয় করেছে, তাকে অর্থবহ করতে হবে। সমুদ্র সম্পদ ও পরিবেশ সুরক্ষা, সমুদ্র সম্পদ আহরণ তথা সুনীল অর্থনীতি বা ‘ব্লু-ইকোনমি’ পরিকল্পনা প্রণয়নে শিক্ষক-গবেষকদের টেকসই পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়নে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণে সরকারের নীতি নির্ধারক মহলকে সর্বাত্মক সহযোগিতা প্রদান করা এখন সময়ের দাবী।
তিনি আরও বলেন, সরকারের সমুদ্রের অর্থনৈতিক উন্নয়নে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশীদার প্রতিষ্ঠান। এ বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব মেরিন সায়েন্সেস এন্ড ফিশারিজ গত চারযুগ ধরে সহস্রাধিক দক্ষ ও যোগ্য জনবল উৎপাদন করেছে।
চ.বি. ইনস্টিটিউট অব মেরিন সায়েন্সেস এন্ড ফিশারিজের শিক্ষক-গবেষক ও শিক্ষার্থীবৃন্দ সকল সুযোগ-সুবিধার সর্বোচ্চ সদ্ব্যবহারের মাধ্যমে দেশের কাক্সিক্ষত উন্নয়ন ও অগ্রগতিতে দৃশ্যমান ভূমিকা ও অবদান রাখবেন  উপাচার্য এ প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ