ঢাকা, রোববার 16 April 2017, ৩ বৈশাখ ১৪২৩, ১৮ রজব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

গাজীপুরে ছুরিকাঘাতে দুই চালককে খুন করেছে দুবৃত্তরা

গাজীপুর সংবাদদাতা : গাজীপুরে পৃথক ঘটনায় ছুরিকাঘাতে এক বাস চালক ও এক রিক্সা চালককে খুন করেছে দুর্বৃত্তরা।
পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান, ঢাকা-গাজীপুর রুটে গাজীপুর পরিবহন সার্ভিসের বাস চালাতো সুজন মিয়া ওরফে সুজন ভান্ডারি (২২)। সে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের পূর্ব চান্দনা এলাকার ভান্ডারি বাড়ির আলমগীর হোসেনের ছেলে। নিহতের বাবা জানান, প্রতিদিনের মতো বাস চালাতে শনিবার ভোরে বাসা থেকে শিমুলতলী বাসস্ট্যান্ডের উদ্দেশ্যে বের হয় সুজন। পথে সে রেললাইনের পাশ দিয়ে হেঁটে পূর্ব চান্দনা বিহারীবাড়ি এলাকায় পৌঁছলে ওই এলাকার বিহারী বাড়ির কামালের ছেলে জয়সহ কয়েক যুবক সুজনের পথরোধ করে এবং সুজনের পেটে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সুজনকে মৃত ঘোষণা করেন।
জয়দেবপুর থানার এসআই আব্দুল মোতালেব জানান, পূর্ব বিরোধের কারণে এঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। নিহতের নাভীর উপরে ধারালো অস্ত্রের আঘাতে চিহ্ন রয়েছে। জয়ের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসা ও ছিনতাইসহ বিভিন্ন অভিযোগ রয়েছে। এঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।
এদিকে, জয়দেবপুর থানার এসআই এনায়েত হোসেন জানান, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের পোড়াবাড়ি এলাকায় গত বৃহষ্পতিবার রাতে আব্দুর রহিম (৩২) নামের এক রিক্সা চালকের পেটে ছুরিকাঘাত করে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। আহতাবস্থায় দৌড়ে সে তার বাড়িতে যায়। পরে স্থানীয়রা আশংকাজনক অবস্থায় তাকে শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। গুরুতর অবস্থায় শনিবার ভোর রাতে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মারা যায়। দুপুরে খবর পেয়ে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। নিহত রহিম পোড়াবাড়ি এলাকার মহর আলীর ছেলে। ধারণা করা হচ্ছে পূর্ববিরোধের জেরে এঘটনা ঘটেছে। নিহতের নাভীর ডান পাশে ধারালো অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ