ঢাকা, মঙ্গলবার 18 April 2017, ৫ বৈশাখ ১৪২৩, ২০ রজব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

দুটি সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৫ ॥ আহত ২৫

বগুড়া অফিস : বগুড়ার শেরপুরে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে যাত্রীবাহী বাস উল্টে মহাসড়কের পাশে খাদে পড়ে ৩ জন যাত্রী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে ২৫ জন। আহতদের উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (শজিমেক)সহ বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে। গত রোববার দিবাগত রাত অনুমান ১টার দিকে ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কের উপজেলার সীমান্তবর্তী সীমাবাড়ী বগুড়া বাজার নামক স্থানে এই দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনায় নিহতরা হলেন- গাইবান্ধার সাঘাটা উপজেলার ফৌড়তেপাড়ার মোফাজ্জল আকন্দের ছেলে আব্দুল মান্নান (৩৮), সাইদুর রহমান (৩৫) এবং একই জেলা ও উপজেলার গোবিন্দপুর বন্দরপাড়ার মো. তারেক (২৮)। এদিকে দুর্ঘটনার পরপরই মহাসড়ক দিয়ে সব ধরনের যান চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। প্রায় দেড় ঘণ্টাব্যাপী উদ্ধার তৎপরতা চালানোর পর মহাসড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়। শেরপুর ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার মো. সোহেল রানা জানান, গাইবান্ধা থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়া নিউ সাফা পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস উক্ত স্থানে পৌঁছালে চালক বাসের নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে। এতে যাত্রীবোঝাই বাসটি উল্টে মহাসড়কের পশ্চিমপাশে খাদে পড়ে যায়। এসময় দুর্ঘটনা কবলিত বাসের ভেতরে ওই তিনজন যাত্রী আটকা পড়ে নিহত হন। বাসের বিভিন্ন অংশ কেটে তাদের লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় কমপক্ষে ২৫জন যাত্রী আহত হন। খবর পেয়ে শেরপুর ও পাশের রায়গঞ্জ উপজেলা থেকে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের তিনটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে একযোগে উদ্ধার তৎপরতা শুরু করে। স্থানীয়দের সহায়তায় আহতদের উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (শজিমেক)সহ চান্দাইকোনা, শেরপুর, রায়গঞ্জসহ বিভিন্ন চিকিৎসালয়ে পাঠিয়ে দেয়া হয় বলে তিনি জানান। এদিকে শেরপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আতোয়ার রহমান বলেন, দুর্ঘটনার কিছুক্ষণ পর থেকেই মহাসড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়। গাড়িটির ব্রেক ফেল করায় চালক বাসের নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেললে বাসটি উল্টে মহাসড়কের পাশে খাদে পড়ে যায়।
নিহত ২ আহত ১০
কালিহাতী (টাঙ্গাইল) সংবাদদাতা : বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের কালিহাতী উপজেলার চরভাবলায় গতকাল সোমবার দুপুর সোয়া ১২ টায় বাস-কভার্ডভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে ২ জন নিহত ও অন্তত ১০জন আহত হয়েছে। নিহতদের মধ্যে বাসযাত্রী মজিদ (৪৫) ও কভার্ডভ্যান চালক অজ্ঞাত (৩০)। আহতদের উদ্ধার করে টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব থানার এস আই তাজউদ্দিন আহম্মেদ জানান, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা রংপুরগামী আর বি ট্রাভেলসের একটি বাস (ঢাকা মোট্রো-ব-১২-০১৩০) ঘটনাস্থলে পৌঁছলে বিপরীত দিক থেকে আসা যশোর ট্রেডিংয়ের একটি কভার্ড ভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই কভার্ড ভ্যানের চালক অজ্ঞাত (৩০) মারা যায়। গুরুতর আহত বাস যাত্রী মজিদ (৪৫) কে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা উদ্ধার করে টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে মারা যায়, আহত হয় অন্তত ১০ জন। আহতদের উদ্ধার করে টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
মিরসরাইয়ে নিহত ১॥ আহত ৪
মিরসরাই (চট্টগ্রাম) সংবাদদাতা : মিরসরাইয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় ১ জন নিহত ও আহত হয়েছে ৪ জন। গতকাল সোমবার সকাল ৬টার সময় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মিরসরাই সদর ইউনিয়নের ওয়ার্লেস সড়কের মুখে এই দুর্ঘটনা ঘটে। ঢাকাগামী একটি অজ্ঞাত কাভার্ডভ্যান বারইয়ারহাটমুখী জননী এন্টারপ্রাইজ নামক হিউম্যান হলারকে (চট্ট-মেট্টো-ছ-১১-১৪৫৫) ধাক্কা দিলে হিউম্যান হলারটি মহাসড়কের পাশের খাদে পড়ে যায়। মিরসরাই ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স ও জোরারগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশ উদ্ধার তৎপরতায় অংশগ্রহণ করে। নিহতের লাশ সকাল ১১ টার সময় খাদ থেকে উদ্ধার করা হয়। নিহত আলা উদ্দিন (৫০) উপজেলার ১৩ নম্বর মায়ানী ইউনিয়নের পশ্চিম মায়ানী গ্রামের মৃত আবদুল হকের পুত্র। এছাড়া আহত হয় ময়মনসিংহের আব্দুল খালেকের পুত্র ই¯্রাফিল (৬৫), বড়তাকিয়ার মকসুদ আহম্মদের পুত্র আবুল মনসুর (৫৫), জামালপুর গ্রামের সোলেমানের পুত্র আমজাদ হোসেন (৫০), মিয়নের দোকান এলাকার নুরুল হকের পুত্র পারভেজ হোসেন (৪০)। আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স মস্তাননগর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
জোরারগঞ্জ হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ শফিকুল ইসলাম জানান, দুর্ঘটনা কবলিত হিউম্যান হলারটি উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। আহতরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ