ঢাকা, শনিবার 22 April 2017, ৯ বৈশাখ ১৪২৩, ২৪ রজব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

চট্টগ্রামে জাগপা’র আলোচনা সভা

চট্টগ্রাম: ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরীক দল জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি-জাগপার কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি আবু মোজাফফর মোহাম্মদ আনাছ বলেছেন- যে যাই বলুন না কেন বাস্তবতা হচ্ছে শেখ হাসিনাকে দিল্লি থেকে খালি হাতে ফিরতে হয়েছে। পশ্চিম বঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা যা পেরেছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হয়েও শেখ হাসিনা তাও পারেন নাই ফায়সালা হবে বাংলাদেশ ও ভারতের প্রধানমন্ত্রীর মধ্যে সেই খানে পশ্চিম বঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা কেন? তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী মুদি কৌশলে স্বাধীন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর সাথে ভারতীয় মুখ্যমন্ত্রীকে এক কাতারে দাঁড় করিয়েছেন এটা রক্তে কেনা স্বাধীন বাংলাদেশের জন্য অসম্মান ও লজ্জার কথা। আমরা তিস্তার পানির ন্যায্য হিস্য পেলাম না অথচ সামরিক চুক্তির নামে আমাদের গোলামি চুক্তি মানতে বাধ্য করা হলো। দিল্লি আমাদের পানি দেবে না সীমান্তে পাখির মতো মানুষ মারবে আর আমরা ট্রানজিট সহ সব উজার করে দেব এটা মানতে জাতি বাধ্য নয়। স্বাধীনতা যুদ্ধে দিল্লী আমাদের সাহায্য করেছে কিন্তু এটাও মনে রাখতে হবে রাষ্ট্র দাতব্য প্রতিষ্ঠান নয়, সাহায্যের জন্য দিল্লীর ও স্বার্থ ছিল। কৃতজ্ঞতারও একটা সীমারেখা আছে। এক তরফা ভালোবাসা অনন্তকাল চলতে পারে না ক্ষমতাসীনদেরও মনে রাখা উচিত নির্বাচিত বলে মমতাও যা পারেন একটি ভোটারবিহীন সরকারও তা পারেন না।
দেশপ্রেমিক শক্তির প্রতি আহবান জানিয়ে আবু মোজাফফর মোহাম্মদ আনাছ বলেন- মনে রাখবেন স্বাধীনতার ছায়া ছাড়া গণতন্ত্র বাঁচেনা সুতারাং গণতন্ত্র ফিরে পেতে স্বাধীনতা রক্ষার সংগ্রাম জোরদার করতে হবে আমরা চাই কিংবা না চাই আরেকটি স্বাধীনতা যুদ্ধ অপরিহায্য। তিনি ২০ দলীয় নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে সর্বত্মাক সংগ্রামের প্রস্তুতি নেওয়ার আহবান জানান।
জাগপা সভাপতি শফিউল আলম প্রধানের সহধর্মীনি ও সংগঠনের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি অধ্যাপিকা রেহেনা প্রধানের আরোগ্য কামনায় আবু মোজাফফর মোহাম্মদ আনাছ  ১৭ চট্টগ্রাম মহানগর জাগপা’র উদ্যোগে আগ্রাবাদস্থ দলীয় কার্যালয়ে আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে সভাপতির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ