ঢাকা, বুধবার 17 May 2017, ০৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪, ২০ শাবান ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের নিরাপত্তা বিষয়ক কমিটির সঙ্গে আইজিপির বৈঠক

 

স্টাফ রিপোর্টার : অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের নিরাপত্তাবিষয়ক কমিটির সঙ্গে বৈঠক করেছেন বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) একেএম শহীদুল হক। গতকাল মঙ্গলবার সকালে পুলিশ সদর দফতরে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় পুলিশ সদর দফতরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। পুলিশ সদর দফতরের এআইজি (মিডিয়া) সহেলী ফেরদৌস বৈঠকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের সফরকে সামনে রেখে বাংলাদেশের নিরাপত্তা পর্যবেক্ষণ করতেই ঢাকায় এসেছেন ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার দুর্নীতি ও নিরাপত্তাবিষয়ক পরামর্শক শন ক্যারল।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ২০১৫ সালের অক্টোবরে দুটি টেস্ট খেলতে বাংলাদেশে আসার কথা ছিল অস্ট্রেলিয়ার। তবে নিরাপত্তা ইস্যুতে শেষ পর্যন্ত সফরটি স্থগিত করে অস্ট্রেলিয়া। তবে গেল বছর ইংল্যান্ডের বাংলাদেশ সফর চলাকালীন আবারও বাংলাদেশে এসে নিরাপত্তা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা দেখে ইতিবাচক মনোভাব প্রকাশ করেন তারা। এবার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে আবারও নিরাপত্তা পরিকল্পনা পর্যবেক্ষণ করতে সোমবার রাতে ঢাকায় এসেছেন শন ক্যারল।

সহেলী ফেরদৌস জানান, সকালে পুলিশের মহাপরিদর্শক একেএম শহীদুল হকের সঙ্গে শন ক্যারলের বৈঠক হয়েছে। বৈঠক থেকে নিরাপত্তার ইস্যুতে সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেয়া হয়েছে।

বিকেলে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে বৈঠকের পর বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) কার্যালয়ে যাবার কথা রয়েছে শন ক্যারলের। ঢাকায় নিরাপত্তা পর্যবেক্ষণ শেষে আজ মঙ্গলবার চট্টগ্রাম যাবার কথা রয়েছে তার।

জঙ্গি অভিযানের সময় কোনও ক্ষতি হবে না, এটা বলা যাবে না

পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) একেএম শহীদুল হক বলেছেন, ‘জঙ্গি অভিযানের সময় আমাদের (পুলিশের) কোনও ক্ষতি হবে না, এটা বলা যাবে না। যুদ্ধক্ষেত্রে একপক্ষের ক্ষতি হয় না। উভয় পক্ষেরই ক্ষয়ক্ষতি হয়।’ গতকাল মঙ্গলবার বিকালে পুলিশ সদর দফতরে সাংবাদিকদের কাছে এই মন্তব্য করেন।

এর আগে পুলিশ সদর দফতরের সম্মেলন কক্ষে রাজশাহী গোদাগাড়ীর জঙ্গি আস্তানায় নিহত ফায়ার সার্ভিস কর্মী আব্দুল মতিনের স্ত্রী-সন্তান ও আহত পুলিশ সদস্যদের হাতে অনুদান তুলে দেন আইজিপি। পুলিশ সদর দফতরের সম্মেলন কক্ষে নিহতের স্বজনদের প্রতি সমেবদনা ও সম্মাননা জ্ঞাপন অনুষ্ঠানে ফায়ার সার্ভিসের মহাপরিচালক (ডিজি) বি. জে. আলী আহম্মদ খান উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে নিহত ফায়ার সার্ভিসের কর্মী আব্দুল মতিনের স্ত্রী মোসা. তানজিলা বেগম, তার দুই সন্তান ও ছোট ভাই উপস্থিত ছিলেন। নিহত ফায়ার সার্ভিস কর্মী মতিনের স্ত্রীর হাতে সাত লাখ ও তার মায়ের জন্য ছোট ভাইয়ের হাতে তিন লাখ টাকা তুলে দেন।

গত ১১ মে গোদাগাড়ি জঙ্গি আস্তানায় আব্দুল মতিনকে কুপিয়ে ও সুইসাইডাল ভেস্ট বিস্ফোরণ ঘটিয়ে জঙ্গিরা হত্যা করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ