ঢাকা, বুধবার 17 May 2017, ০৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪, ২০ শাবান ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

নেত্রকোনায় ইভটিজিংয়ের প্রতিবাদ করায় মারধর ॥ বাড়িঘরে হামলা ভাঙচুর

নেত্রকোনা সংবাদদাতা: ইভটিজিংয়ের প্রতিবাদ করায় বখাটে যুবকরা প্রতিবাদকারীকে মারধরের পর বাড়ীঘরে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাট করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত রোববার রাতে নেত্রকোনা সদর উপজেলার রৌহা ইউনিয়নের বড় গাড়া গ্রামে।
এলাকাবাসী ও থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, তেলিগাতী গ্রামের কতিপয় বখাটে যুবক পার্শ্ববর্তী বড় গাড়া গ্রামের তিন স্কুলছাত্রীকে স্কুলে যাওয়া-আসার পথে প্রায়শই ইভটিজিং করতো।
গত রবিবার বিকেলে তিন ছাত্রী বাড়ীর সামনের মগড়া নদীতে গোসল করতে গেলে বখাটে যুবকরা সেখানেও ইভটিজিং শুরু করে। এ সময় বড় গাড়া গ্রামের মৃত মানিক মিয়ার পুত্র আলমগীর ইভটিজিংয়ের প্রতিবাদ করলে বখাটে যুবকরা ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে মারধর করে। পরবর্তীতে বখাটে যুবকরা সংঘবদ্ধ হয়ে রাত সোয়া ৯টার দিকে দেশীয় অস্ত্রেশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে মৃত মানিক মিয়া, শামীম মিয়া ও সাজেদা বেগমের বাড়ীঘরে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করে। বর্তমানে অসহায় পরিবারটি চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে।
নেত্রকোনা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোহাম্মদ ছানোয়ার হোসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, খবর পাওয়ার পরপরই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। লিখিত অভিযোগ পেলে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্তা নেয়া হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ