ঢাকা, সোমবার 05 June 2017, ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২8, ৯ রমযান ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

নরসিংদীর হাজীপুর ইউপি মেম্বার ও চেয়ারম্যানকে বরখাস্তের ঘটনা নিয়ে বিভ্রান্তি

নরসিংদী সংবাদদাতা: নরসিংদীর হাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার ও চেয়ারম্যানকে সাময়িক বরখাস্তের ঘটনা নিয়ে স্থানীয় জনমনে ব্যাপক বিভ্রান্তি সৃষ্টি হয়েছে।
স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে প্রেরিত একটি অফিস আদেশ নিয়ে এই বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়েছে।
জানা গেছে, হাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৭ নং ওয়ার্ডের মেম্বার আলতাফ হোসেনের বিরুদ্ধে রয়েছে খুনসহ বিভিন্ন মামলা ও অভিযোগ। পাশাপাশি ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ ইউসুফ খান পিন্টুর বিরুদ্ধে রয়েছে সরকারী চাল আত্মসাৎ, চাঁদাবাজীসহ বিভিন্ন অভিযোগ।
সম্প্রতি একই ইউনিয়নের বাদুয়ারচর গ্রামের এবাদুল্লাহ হত্যা মামলার তদন্ত শেষে আসামী হিসেবে মেম্বার আলতাফ হোসেনের বিরুদ্ধে পুলিশ চার্জশীট প্রদান করেন। এ চার্জশীটের সূত্র ধরে মামলার বাদী ইউনিয়ন পরিষদ আইনের ২০৯ ধারার ৩৪(১) ধারা মোতাবেক তাকে সাময়িকভাবে বরখাস্তের আবেদন জানায়।
আবেদন অনুযায়ী স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় এক চিঠিতে তাকে বহিস্কারের জন্য নরসিংদী জেলা প্রশাসককে নির্দেশ দেন। একই আদেশ পত্রে ইউপি চেয়ারম্যান ইউসুফ খান পিন্টুকেও সাময়িক বরখাস্তের আদেশ দেন। তবে চেয়ারম্যান ইউসুফ খান পিন্টুকে কোন মামলার পরিপ্রেক্ষিতে বা কোন কারণে বরখাস্ত করা হয়েছে তা উল্লেখ না করায় এলাকার জনমনে বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়।
ইতোমধ্যে নরসিংদী সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম রেজা ইউপি সচিব ও ইউপি চেয়ারম্যান ইউসুফ খান পিন্টুকে ফোন করে অফিসে এনে তাদের কার্যক্রম বন্ধ রাখার মৌখিক নির্দেশ দেন। এ খবর ছড়িয়ে পড়ার পর ইউপি চেয়ারম্যান পিন্টু ও মেম্বার আলতাফ হোসেন বিরোধীরা এলাকায় ব্যাপক উল্লাস করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ