ঢাকা, সোমবার 05 June 2017, ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২8, ৯ রমযান ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

মেয়ে ও পিতা রক্তাক্ত জখম ঃ ৩ জন আটক

মাগুরা সংবাদদাতা: মাগুরা সদর উপজেলার আঠারখাদা ইউনিয়নের গোপীনাথপুর গ্রামে মেয়েকে অপহরণের থেকে রক্ষা করতে গেলে দূর্বৃত্তরা উক্ত মেয়ে ও তার পিতাকে ধারাল অস্ত্রে মারাত্মক জখম করেছে । বৃহস্পতিবার রাত ১০ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। রাতেই তাদের মাগুরা ২৫০ শয্যার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ ৩ যুবককে আটক করেছে। মেয়েটির পিতা হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে জানায়, ২০১৫ সালে তার এ মেয়ে যখন ৮ম শ্রেনীতে পড়ে তখন উত্ত্যক্ত করার অভিযোগে প্রতিবেশী উকিল মিয়ার ছেলে সজিবের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। এ ঘটনার পর এলাকার প্রভাবশালীদের মধ্যস্থতায় মামলা তুলে নিতে বাধ্য হয় বিনয় বিশ্বাস। এর পর থেকে বিভিন্ন ভাবে সজিব  ও তার সঙ্গীরা হুমকি দিয়ে আসছিল।
গত বৃহস্পতিবার রাত ১০ টারদিকে হঠাৎ সজিব তার ভাই নাজমুলসহ অপরিচিত আপর ২ জন বাড়ীর মধ্যে প্রবেশ করে উক্ত মেয়েটিকে টেনে বের করে নিতে চেষ্টা করে। এ সময় মেয়েটির চিৎকারে তাকে রক্ষায় এগিয়ে আসলে দুর্বৃত্তরা বেপরোয়া ভাবে কোপাতে কোপাতে পালিয়ে যায়। এতে মেয়ে ও তার পিতা বিনয় বিশ্বাস মারাত্মক জখম হয়। মাগুরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) হোসেন আল মাহবুব জানান, এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে সজিব,নাজমুল সবুজ নামে তিন যুবককে আটক করা হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ