ঢাকা, মঙ্গলবার 06 June 2017, ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২8, ১০ রমযান ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বিএনপির নেতিবাচক আন্দোলনে জনগণ সাড়া দেবে না ---কাদের

স্টাফ রিপোর্টাও : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপির নেতিবাচক রাজনীতির জন্য জনগণ তাদের আন্দোলনে কোন সাড়া দেবে না।

গতকাল সোমবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ জেলার ভুলতা এলাকায় নির্মাণাধীন ফ্লাইওভারের কাজ পরিদর্শন কালে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে এ কথা বলেন। এ সময় তার সাথে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

তিনি বলেন, বিএনপি গত আট বছরে প্রায় ৪০ বার আন্দোলনের ডাক দিয়েছে। কিন্তু তাদের কোন ডাকেই দেশের মানুষ সাড়া দেয়নি। কারণ, তাদের আন্দোলনের সাথে জনগণের কোন সম্পৃক্ততা নেই।

কাদের আরো বলেন, বিএনপির নেতিবাচক রাজনীতির যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে সে অনুযায়ী জনগণ তাদের ডাকে সাড়া দেবে তা ভাবার কোন কারণ নেই। বিএনপির আন্দোলনের হুমকি আষাঢ়ের তর্জন-গর্জন ছাড়া আর কিছুই নয়।

বিএনপির নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকারের দাবির জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকারের কোন বিধান সংবিধানে নেই। আর শুধু আমাদের দেশ নয়, পৃথিবীর কোনো গণতান্ত্রিক দেশে সহায়ক সরকারের কোন বিধান নেই।

তিনি বলেন, নির্বাচনকালীন সময়ে নির্বাচন কমিশন নির্বাচন পরিচালনা করে। নির্বাচন কমিশনের অধীনেই নির্বাচন পরিচালিত হবে। সরকার অন্যান্য দেশের মতো রুটিন দায়িত্ব পালন করবে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়সহ নির্বাচন পরিচালনায় যারা জড়িত থাকে তারা নির্বাচন কমিশনের নিয়ন্ত্রণে থাকবে উল্লেখ করে কাদের বলেন, বিএনপি’র নির্বাচন নিয়ে ভয় পাওয়ার কোন কারণ নেই।

বিএনপি নির্বাচনে আসবে বলে উল্লেখ করে কাদের বলেন, বিএনপির নির্বাচনে না আসার কোনো বিকল্প নেই। বিএনপি নির্বাচনে না এসে নিজেদের অস্তিত্ব আবারও ঝুঁকির মধ্যে ফেলবে এমনটা মনে হয়না।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বেশ কয়েকটি বিষয়ে ইঙ্গিত দিয়েছেন।

তিনি বলেন, আগামী এক মাস বাজেট নিয়ে সংসদে আলোচনা করে জনস্বার্থ বিঘœকারি কিছু যদি থাকে তা আলোচনা সমালোচনা করে সংশোধন করার বিষয়ে বিবেচনা করা হবে। প্রস্তাবিত এই বাজেটে সরকার অনড় এটা ভাববার কোনো কারণ নেই।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ