ঢাকা, বুধবার 21 June 2017, ০৭ আষাঢ় ১৪২8, ২৫ রমযান ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

২০ হাজার টাকা মুক্তিপণের বিনিময়ে মঞ্জয়কে ফিরে পেলো তার পিতা-মাতা

নরসিংদী সংবাদদাতা: অবশেষে অপহরণকারী দেরকে ২০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দিয়ে পিতা-মাতা ফিরে পেয়েছে তাদের আদরের একমাত্র পুত্র সন্তান মঞ্জয় দত্তকে। অপহরণকারীরা ২০ হাজার টাকার বিনিময়ে স্কুল ছাত্র মঞ্জয়কে আহত অবস্থায় সিএনজি থেকে চলে গেছে।
গত শনিবার সকাল ৭ টা রাত ১০টার মধ্যে নরসিংদী জেলা শহরের ভেলানগর এলাকায় এই অপহরণের ঘটনাটি সংঘটিত হয়েছে।
পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, শিবপুর উপজেলার কারারচর আমতলা এলাকায় বিমল দত্তের পুত্র মঞ্জয় দত্ত স্থানীয় কারারচর মৌলভী তোফাজ্জল হোসেন উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। পাশাপাশি ভেলানগর এলাকায় এক গণিত শিক্ষকের নিকট প্রাইভেট কোচিং করে। 
শনিবার সকালে মঞ্জয় বাড়ি থেকে কোচিং সেন্টারের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়।
সকাল ৭টায় সে ভেলানগর ভৈরব বাসস্ট্যান্ড পৌছলে মাইক্রোবাস আরোহী একদল অপহরণকারী তার নাকে-মুখে স্প্রে করে তাকে অজ্ঞান করে  মাইক্রো বাসে উঠিয়ে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায়। সেখানে  তাকে সারাদিন আটকে রেখে মারধোর করে এবং তার সাথে থাকা মোবাইল(০১৭৮০০৯০৯১৫)ফোনের মাধ্যমেই মায়ের কাছে প্রথমে ২লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবী করে। মঞ্জয়’র মাতা নিপা দত্ত এত বেশী টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে অপহরণকারীরা শেষ পর্যন্ত ২০ হাজার টাকায় রাজী হয়। পরে বিকেলে মঞ্জয়ের নিজস্ব মোবাইল ফোনের বিকাশ পারসোনাল নাম্বারে ২০ হাজার টাকা প্রেরণ করার রাত ১০টায় অপহরণকারীরা তাকে ভেলানগরে ফেলে চলে যায়। এঅবস্থায় মঞ্জয়ের পিতা-মাতা তাকে উদ্ধার করে নরসিংদী জেলা হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। এব্যাপারে মঞ্জয়ের মাতা বাদী হয়ে শিবপুর মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ