ঢাকা, সোমবার 10 July 2017, ২৬ আষাঢ় ১৪২8, ১৫ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

খুলনায় স্ত্রী হত্যার অভিযোগে স্বামীর নামে মামলা

খুলনা অফিস : খুলনা নগরীর সদর থানাধীন ৯/১, ছোট মির্জাপুর এলাকায় স্ত্রী আজরা আক্তার ফারিয়া (২০) কে হত্যার অভিযোগে স্বামী  মো. হাফিজুর রহমান ওরফে শাকিল আহমেদ (২৮)’র নামে মামলা দায়ের হয়েছে। শনিবার ফারিয়ার মা ফাতেমা বেগম বাদি হয়ে সদর থানায় মামলাটি দায়ের করেন (নং-১৪)।
এদিকে গ্রেফতার শাকিলকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদনসহ আদালতে সোপর্দ করে পুলিশ। মহানগর হাকিম মো. শাহীদুল ইসলাম তাকে জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ দিয়েছেন। শাকিল আহমেদ চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি এলাকার এককুলিয়া গ্রামের মৃত ফরিদ আহমেদের ছেলে। স্ত্রী ফারিয়াকে নিয়ে ছোট মির্জাপুর কাগজী বাড়ি এলাকার মাহবুবা খানমের বাসায় তারা ভাড়া থাকতেন। 
মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, বিয়ের পর থেকেই ফারিয়ার পরিবারকে যৌতুকের জন্য চাপ দেয় শাকিল। এক পর্যায়ে গত বছরের ১৩ নবেম্বর তাদের মধ্যে তালাক হয়। পরবর্তীতে শাকিল পূর্বের ঘটনার জন্য ক্ষমা চেয়ে পুনরায় ফারিয়াকে নিয়ে সংসার শুরু করে। তবে গত শুক্রবার রাতে আবারও তাকে যৌতুকের জন্য মারপিট করে। এক পর্যায়ে রাত ৯টার দিকে নির্যাতনের পর তাকে হত্যা করে। ফারিয়া নগরীর বসুপাড়া ২৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কার্যালয়ের সামনের স্বপনের বাড়ির ভাড়াটিয়া। তার পিতার নাম মৃত কামাল হোসেন।
বাবুর্চিকে অব্যাহতি
রোগীদের নাস্তা চুরির অভিযোগে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বেল¬াল নামে এক বাবুর্চিকে অব্যাহতি দিয়েছে নব নিযুক্ত তত্ত্বাবধায়ক এটিএম মোর্শেদ। শনিবার সকালে লেবার ওয়ার্ডে ভর্তি ৩৬ জনের মধ্যে ৩০ জনের নাস্তাই চুরি করা হয়েছে। যে ছয় জন নাস্তা পেয়েছেন তারা শুধু রুটি ও কলা পেয়েছেন ডিম কাউকেই দেয়া হয়নি। অথচ সকল রোগীর সম্পূর্ণ নাস্তার বরাদ্দ ছিল।
খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নবনিযুক্ত তত্ত্বাবধায়ক ডা. এটিএম মোর্শেদ বলেন শনিবার সকাল ৯টায় প্রতিদিনের মত ওয়ার্ডে রোগীদের খোঁজ খবর নিতে যাই। সেখানে লেবার ওয়ার্ডে দিয়ে রোগীদের সেখানে রোগী ভর্তি ছিল ৩৬ জন খাবার পেয়েছেন মাত্র ছয় জন। তাও ডিম পায়নি কেউ। এখানে পুকুর চুরি করা হয়েছে।
তখনকে বেল্লালকে (বাবুর্চি) ডাকি। তখন কোন সদুত্তোর দিতে পারেনি। তাই রোগীদের খাবার নিয়ে জালিয়াতির অভিযোগে তাকে বাদ (অব্যাহতি) দেয়া হয়। ভবিষ্যতে হাসপাতালে যে কোন প্রকার অনিয়ম হলে কঠোর হাতে দমন করা হবে বলে তিনি জানান।
দু’চোর হাতেনাতে গ্রেফতার
খুলনায় দিনের বেলায় একটি বাসায় চুরি করতে আসলে লোকজন টের পাওয়ায় নিজেদের রক্ষা করতে ছাদ থেকে লাফিয়ে পালানোর চেষ্টা করেছে রাব্বি (২২) ও মিরাজ (২১) নামে দু’চোর। শনিবার দুপুরে নগরীর গগণবাবু রোডের নূর ভিলার পঞ্চম তলার বাসিন্দা উত্তম কুমার নাথের বাসায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ তাদের হাতেনাতে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃত রাব্বি রূপসার বাগমারা ও মিরাজ মহানগরীর টুটপাড়া জোড়াকল বাজারের বাসিন্দা। এ ঘটনায় বাড়ি ঘেরাও করে পুলিশ তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা করলে এলাকায় ‘জঙ্গী’ আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।
খুলনা সদর থানার ওসি মিজানুর রহমান বলেন, বাসার মালিক না থাকায় চোর গ্রিল কেটে ঘরে ঢোকে। বাড়ির নিচের ভাড়াটিয়ারা টের পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে বাড়িটি ঘেরাও করা হয়। এ সময় চোর দু’জন বাড়ির ছাদে উঠে মালামাল নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার জন্য লাফ দেয়। এতে তারা আহত হয়। তাদের গ্রেফতার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ মালামাল উদ্ধার করে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ