ঢাকা, শুক্রবার 14 July 2017, ৩০ আষাঢ় ১৪২8, ১৯ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

ভারতে আবার গোরক্ষকদের তাণ্ডব

১৩ জুলাই, ইন্টারনেট : ভারতে যেনো গরু রক্ষার নামে তাণ্ডব থামছেই না এবার মহারাষ্ট্রের নাগপুরে সেলিম ইসমাইল শাহ নামের এক ব্যক্তিকে গরুর মাংস বহনের অভিযোগে পিটিয়ে আহত করেছে গোরক্ষকরা।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বক্তব্যেও যে অবস্থার তেমন কোনও পরিবর্তন হয়নি, গতকালের ঘটনা তার জ্বলন্ত প্রমাণ।

স্কুটারে করে গরুর মাংস নিয়ে যাওয়া হচ্ছে, এই সন্দেহে রাস্তায় ফেলে বেধডক পেটানো হল সেলিমকে। গুরুতর আহত অবস্থায় ওই ব্যক্তি চিকিৎসাধীন। ঘটনায় অভিযুক্ত চার জনকে আটক করেছে নাগপুর থানার পুলিশ। স্কুটার থেকে পাওয়া মাংস উদ্ধার করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে।

নাগপুরের ভারসিঙ্গি এলাকায় স্কুটারের ডিকিতে করে সবজি নিয়ে যাচ্ছিলেন সেলিম। সেই সময়ে তার স্কুটারে গরুর মাংস রয়েছে এই অভিযোগে সেলিমের উপরে চডাও হয় চারজনের একটি দল। সেলিমের স্কুটার থামিয়ে রাস্তায় ফেলে বেধডক পেটানো হয় তাকে। সেলিমের উপর এলোপাথাডি লাথি, চড, কিল, ঘুষি মারতে থাকে দুষ্কৃতীরা।

সেলিমের স্ত্রী জানান, শরীরের ভিতরে একাধিক আঘাত পেয়েছেন সেলিম। জানা যায়, ওই চার যুবক স্থানীয় বিধায়ক বাচু কাদুর ‘প্রহর সংগঠন’ এর সদস্য।

মাসখানেক ধরেই ভারতের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে শিরোনামে উঠে আসছে গোরক্ষক বাহিনীদের তা-ব। গত মাসে গোরক্ষক বাহিনীর হাতে ১৫ বছরের কিশোর জুনেইদের শোচনীয় মৃত্যুর পর নিন্দায় সরব হয়েছে বিভিন্ন মহল। প্রতিবাদের ঝড উঠেছে দেশজুড।ে আইন নিজের হাতে না নেওয়ার বার্তাও দিয়েছেন মোদি। পাশাপাশি দেশের হাট বাজারে গবাদি পশুর কেনা বেচার নিষেজ্ঞার উপরেও তিন মাসের জন্য স্থগিতাদেশ জারি করেছে দেশের সর্বোচ্চ আদালত। কিন্তু এত কিছুর পরেও যে চিত্রটা খুব একটা বদলায়নি সেটাই প্রমাণ হল আরও একবার।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ