ঢাকা, রোববার 16 July 2017, ১ শ্রাবণ ১৪২8, ২১ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

কাতার থেকে বছরে আড়াই মিলিয়ন  টন এলএনজি কিনবে সরকার

স্টাফ রিপোর্টার : কাতার থেকে বছরে আড়াই মিলিয়ন মেট্রিকটন তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস কিনবে সরকার। সম্প্রতি দেশটির সাথে ১৫ বছরের সময়সীমা নিয়ে চুক্তিও করেছে। যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম গ্লোবাল প্ল্যাটস্ এ খবর প্রকাশ করেছে। 

এদিকে বাংলাদেশের প্রেট্রোবাংলার ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্তার বরাত দিয়ে সংবাদ মাধ্যমটি আরো জানিয়েছে, তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) আমদানিতে কাতারের সঙ্গে ১৫ বছরের চূড়ান্ত চুক্তি করেছে বাংলাদেশ সরকার।

গত বৃহস্পতিবার ঢাকায় এ চুক্তি হয়েছে। এ সময় পেট্রোবাংলা ও কাতারের র‌্যাশগ্যাস কোম্পানির প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। পেট্রোবাংলার এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার বরাতে সংবাদ মাধ্যমটি জানিয়েছে, চুক্তি অনুযায়ী কাতারের রাষ্ট্রীয় এই কোম্পানি থেকে বছরে আড়াই মিলিয়ন মেট্রিকটন গ্যাস আমদানি করবে বাংলাদেশ।

সাম্প্রতিক সময়ে কাতারকে ঘিরে মধ্যপ্রাচ্য সংকট যখন তীব্র হচ্ছে তার মধ্যে বাংলাদেশের সঙ্গে এই চুক্তি হলো। সংবাদ মাধ্যমটি আরো জানায়, গ্যাসের দরদাম নিয়ে গত সপ্তাহে কয়েকবার বৈঠকে বসার চেষ্টা করে কাতারের প্রতিনিধিরা। কিন্তু দুই পক্ষ চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে আসতে পারেনি। অবশেষে গত বুধবার ঢাকায় আসে কাতারের প্রতিনিধিরা। বৃহস্পতিবার দুই পক্ষ চূড়ান্ত চুক্তিতে পৌঁছে।

পেট্রোবাংলার ওই কর্মকর্তা জানান, চুক্তির বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা হয়েছে। দাম কত হবে; কতটুকু নেয়া হবে, মেয়াদ সবই নির্ধারণ করা হয়েছে।

এর আগে গত জুনে পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান আবুল মনসুর মো. ফাইজুল্লাহ গ্লোবাল প্ল্যাটসকে বলেছিলেন, তিনি কাতার সফরকালে কাতারের রাসগ্যাসের সাথে সরকারি পর্যায়ে প্রাথমিক আলোচনা চূড়ান্ত করেছেন। তারা মূল্য ছাড়া সব ইস্যুর সমাধান করেছেন।

সরকার মূলত ২০১০ সাল থেকে এলএনজি আমদানির প্রক্রিয়া শুরু করে। তখন থেকে এলএনজি আমদানির জন্য কাতারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। এ নিয়ে এর আগে কাতারের সঙ্গে একটি এমওইউ সই করে বাংলাদেশ। টার্মিনাল নির্মাণে সময়ক্ষেপণের কারণে এতদিন প্রক্রিয়াটি ঝুলে ছিল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ