ঢাকা, শুক্রবার 21 July 2017, ৬ শ্রাবণ ১৪২8, ২৬ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

শিক্ষক-কর্মচারীদের কল্যাণ ট্রাস্টের ১০ শতাংশ চাঁদা কর্তনের প্রতিবাদে খুলনায় মানববন্ধন

 খুলনা অফিস : বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারীদের অবসর সুবিধা বোর্ড ও কল্যাণ ট্রাস্টের চাঁদা ৬ শতাংশের পরিবর্তে ১০ শতাংশ কর্তনের প্রতিবাদে গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা থেকে ১২টা পর্যন্ত মানবন্ধন করেন তারা। বৃষ্টির মধ্যে জাতীয় শিক্ষক কর্মচারী ফ্রন্ট খুলনা জেলা শাখা নগরীর পিকচার প্যালেস মোড়ে এ মানবন্ধন আয়োজন করে। অধিক চাঁদা কর্তনের হারকে অযৌক্তিক দাবি করে তা প্রত্যাহারসহ আরও বিভিন্ন দাবি উত্থাপন করেছেন শিক্ষক-কর্মচারীরা। দাবিগুলোর মধ্যে রযেছে, সুনির্দিষ্ট নীতিমালার ভিত্তিতে শিক্ষা জাতীয়করণ, অনার্সসহ নন এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের এমপিওভুক্তকরণ, ৫ শতাংশ বার্ষিক প্রবৃদ্ধি, পূর্ণাঙ্গ উৎসব ও বৈশাখী ভাতা প্রদান করতে হবে। 

এ দাবি আদায়ের লক্ষ্যে আগামী ২৩ জুলাই সকল উপজেলা সদরে বিক্ষোভ মিছিল এবং ৩০জুলাই খুলনার শহীদ হাদিস পার্কে সমাবেশ ও সমাবেশ শেষে খুলনা জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি প্রদান করা হবে। আগামী ৭ সেপ্টেম্বরের মধ্যে দাবি বাস্তবায়ন না হলে কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে মানববন্ধন থেকে বক্তারা জানান।

মানববন্ধন কর্মসূচি চলাকালে অনুষ্ঠিত সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন জাতীয় শিক্ষক-কর্মচারী ফ্রন্টের খুলনা জেলা সমন্বয়কারী অধ্যাপক মো. আলমগীর কবির। বাংলাদেশ কলেজ শিক্ষক সমিতি খুলনা জেলা সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ বুলুর পরিচালনায় উক্ত সমাবেশে বক্তৃতা করেন শিক্ষকবৃন্দ যথাক্রমে রঞ্জন কুমার তরফদার, ড. সাইদুর রহমান, আব্দুল মতিন, আসিফ ইকবাল, এস এম ইমরান হোসেন, সুবীর কুমার রায়, মো. মিজানুর রহমান, শেখ অলিয়ার রহমান, মনির উদ্দিন বিশ্বাস, পারভীন সুলতানা, শেখ শহিদুল ইসলাম, সৌমেন মন্ডল, এ এস এম অনিছুর রহমান, মো. আবুল খায়ের বিশ্বাস, মো. সফিয়ার রহমান, মো. নুরুল ইসলাম খান, কে এম শরিফুল ইসলাম, বিজয় মৈত্র, দেবদাস মন্ডল, ড. মো. জাকির হোসেন, মনিরুল ইসলাম প্রমুখ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ