ঢাকা, রোববার 23 July 2017, ৮ শ্রাবণ ১৪২8, ২৮ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

গাজীপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনা ব্যবসায়ীসহ নিহত ২

 

গাজীপুর সংবাদদাতা : গাজীপুরে দু’টি পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় এক ব্যবসায়ীসহ দু’জন নিহত হয়েছে। ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। 

মাওনা হাইওয়ে থানার ওসি দেলোয়ার হোসেন জানান, ডাচ বাংলা ব্যাংকের মোবাইল ব্যাংকিং শাখার বিক্রয় প্রতিনিধি লেলিন মোল্লা মনির (৩৩) স্থানীয় বিভিন্ন এজেন্ট পয়েন্ট থেকে টাকা নিয়ে শনিবার বেলা ১১টার দিকে মটর সাইকেল নিয়ে গাজীপুরের শ্রীপুরের মাওনা চৌরাস্তায় ফিরছিলেন। পথে তিনি শ্রীপুর উপজেলার এমসি বাজার এলাকায় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক পার হওয়ার সময় ময়মনসিংগামী একটি কাভার্ডভ্যান তাকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে হাইওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতের লাশ এবং তার সঙ্গে থাকা এক লাখ সাড়ে ৫৬ হাজার টাকা উদ্ধার করে। নিহত লেলিন মোল্ল্যা মনির (৩৩) শ্রীপুর উপজেলার মাওনা ইউনিয়নের দক্ষিণ বারতোপা গ্রামের আব্দুল মালেক মোল্লার ছেলে। সে ডাচ বাংলা ব্যাংকের মোবাইল ব্যাংকিং শাখা “রকেট”এর স্থানীয় পরিবেশক খলিফা এন্টারপ্রাইজে কাজ করতো। পুলিশ কাভার্ডভ্যানটি আটক করেছে, তবে ভ্যানের চালক পালিয়ে গেছে। এদিকে একই মহাসড়কের ভাওয়াল জাতীয় উদ্যানের সামনে এক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। তার নাম জাকির হোসেন (৪৫)। তিনি গাজীপুর সদর উপজেলার বানিয়ারচালা এলাকার মৃত ওমর আলীর ছেলে। তিনি স্থানীয় বিভিন্ন পোশাক কারখানায় ঝুটের ব্যবসা করতেন। গাজীপুরের নাওজোর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ আব্দুল হাই স্থানীয়দের বরাত দিয়ে জানান, ঢাকার উত্তরা এলাকায় স্বপরিবারে থাকেন ঝুট ব্যবসায়ী জাকির হোসেন। শুক্রবার দিবাগত রাতে তিনি নিজে প্রাইভেটকার চালিয়ে উত্তরার বাসা থেকে গাজীপুরে শ্রীপুরের বাঘের বাজারের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে গাজীপুরের ভাওয়াল জাতীয় উদ্যানের সামনে পৌঁছলে একটি অজ্ঞাত গাড়ি ওই প্রাইভেটকারকে ধাক্কা দিয়ে চলে যায়। এসময় জাকির নিয়ন্ত্রণ হারালে প্রাইভেটকারটি একাধিকবার ডিগবাজি খেয়ে মহাসড়কের অপর পাশে গিয়ে পড়ে। এতে প্রাইভেটকারটি দুমড়ে মুচড়ে যায় এবং জাকির আহত হয়ে কারের ভিতরে চাপা পড়ে আটকে যায়। স্থানীয়রা কারের ভিতরে আটকে থাকা জাকিরকে উদ্ধারের চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে আটকে থাকা জাকিরকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এসময় ওই গাড়ি থেকে ১৭ হাজার দু’শ টাকা উদ্ধার করা হয়। নিহতের ভাই নাসির উদ্দিন জানান, ব্যবসায়ী জাকির হোসেন স্বপরিবারে ঢাকার উত্তরায় থাকেন। তিনি বাঘের বাজার এলাকার কয়েকটি পোশাক কারখানায় ঝুট ব্যবসা করেন। পোশাক কারখানাগুলোতে দেয়ার জন্য রাতে তিনি বাসা থেকে ২৭ লাখ টাকা নিয়ে বাঘের বাজারের উদ্দেশে রওয়ানা হন। দুর্ঘটনার খবর শুনে ঘটনাস্থল থেকে তাকে উদ্ধার করা হলেও তার সঙ্গে থাকা ২৭ লাখ টাকা পাওয়া যায়নি। তার মৃত্যুর ঘটনাটি রহস্যজনক বলে দাবি করেন তিনি।

জয়দেবপুর থানার হোতাপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই নাজমুল হাসান জানান, নিহতের সঙ্গে ২৭ লাখ টাকা থাকার বিষয়টি জানা নেই।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ