ঢাকা, সোমবার 24 July 2017, ৯ শ্রাবণ ১৪২8, ২৯ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

সোনাগাজীতে হাইব্রিড বিদ্যুৎ প্রকল্পে ১ বছর পর উৎপাদন শুরু হবে

 

মাহমুদুল হাসান, সোনাগাজীর চরাঞ্চল থেকে ফিরে : আগামী ১ বছর পর বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ সৌর ও বায়ু বিদ্যুৎ প্রকল্প হতে ২০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন শুরু হবে। সোনাগাজীর চর চান্দিয়া ইউনিয়নের চর বড়ধলী মৌজায় ১০০০ একর জায়গার উপর ইলেকট্রিসিটি জেনারেশন কোম্পানী অব বাংলাদেশ লি: এর প্রকল্প হতে এ বিদ্যুৎ উৎপাদন শুরু হবে। প্রাথমিক পর্যায়ে এ সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্প হতে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ এবং বায়ু বিদ্যুৎ প্রকল্প হতে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সহ মোট ২০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা স্থির করা হয়েছে যা দেশের জাতীয় বিদ্যুৎ গ্রীডে যোগ হবে। পর্যায়ক্রমে এর পরিধি আরো বাড়বে বলে কোম্পানীর লোকজন জানিয়েছে। ইজিসিবি এর প্রকল্প পরিচালক ড. কাজী মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির জানিয়েছেন বিদ্যুৎ প্রকল্পের পক্ষ হতে ভূমি অধিগ্রহণ খাতে প্রায় ১০০ কোটি ৩২ লাখ টাকা ফেনী জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে পরিশোধ করা হয়েছে। গত কাল শনিবার দুপুরে প্রকল্প এলাকায় বেড়ী বাঁধের উপর ভূমি অধিগ্রহণ কালে ক্ষতিগ্রস্ত ভূমির মালিকদের মাঝে আনুষ্ঠানিক ভাবে ভূমির ক্ষতিপূরণ টাকার চেক বিতরণ ও মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়। ফেনী জেলার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) কুল প্রদীপ চাকমার সঞ্চালনায় এবং জেলা প্রশাসক মনোজ কুমার রায় এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত চেক বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে চেক বিতরণ করেন বিদ্যুৎ, জালানী ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রনালয়ের সচিব ড. আহমদ কায়কাউস, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত সচিব ও ইজিসিবি লি: এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক এএম মনসুর উল আলম, প্রকল্প পরিচালক ড. কাজী মো: হুমায়ুন কবির। অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন প্রকল্পের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আলী কাওছার ফিরোজ, তত্ত্ববধায়ক প্রকৌশলী ইব্রাহীম আহমদ শাফি আল মোহতাদ, নির্বাহী প্রকৌশলী ইঞ্জি: ইলিয়াছ হোসেন, সোনাগাজী উপজেলা নির্বাহী ্অফিসার মো: মিনহাজুর রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান জেড.এম কামরুল আনাম, পৌরমেয়র রফিকুল ইসলাম খোকন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো: আল মোমিন, উপজেলা যুবউন্নয়ন কর্মকর্তা মো: বেলায়েত হোসেন, উপজেলা কৃষি অফিসার মো: শরীফুল ইসলাম, সোনাগাজী বন বিভাগের রেঞ্জ অফিসার বাবুল চন্দ্র ভৌমিক, সোনগাজী উপজেলা ভূমি অফিসের এসিল্যান্ড বৈশাখী বডুয়া, জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের ভূমি অধিগ্রহণ কর্মকর্তা হাসিনা আক্তার, কানন গো (অতিরিক্ত দায়িত্ব) মো: মনিরুল ইসলাম, চেইন ম্যান মৃত্যুঞ্জয় কুমার দাস লিটন, উপজেলা ভূমি অফিসের সার্ভেয়ার মিজানুর রহমান ও কবির হোসেন, সোনাগাজী পৌর ভূমি অফিসের ভূমি সহকারী কর্মকার্ত মো: ইলিয়াছ, চর চান্দিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন মিলন, চর দরবেশ ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম ভুট্টু প্রমুখ।  চেক বিতরণ অনুষ্ঠান ও মনবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে জালানী মন্ত্রনালয়ের সচিব ড. আহমদ কায়কাউস বলেন, সরকারের সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার হচ্ছে বিদ্যুৎ খাত। জীবনকে পরিবর্তন করবে উন্নত প্রযুক্তি আর সে জিনিটাই হচ্ছে সোলার সিস্টেম। এ প্রযুক্তি বিশ্বের জন্য একটি মডেল। আগামী ১ মাসের মধ্যে এ বিদ্যুৎ প্রকল্পের টেন্ডার প্রক্রিয়া শুরু হবে এবং আগামী ১ বছরের মধ্যে প্রকল্পের কাজ শেষ হলে বিদ্যুৎ উৎপাদন প্রক্রিয়া শুরু হবে। আমরা এটাও আশা করছি যে, প্রকল্প এলাকায় পুরোদমে কার্যাক্রম শুরু হলে সোনাগাজীর চেহারা পরিবর্তন হয়ে যাবে। এ দিকে প্রকল্পের সাথে সংশ্লিষ্ট কোম্পানীর লোকজন জানায়, বিশ্ব ব্যাংকের আর্থিক সহায়তায় ইজিসিবি লি: এর আওতায় সোনাগাজীতে এ বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্রটি প্রতিষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এ প্রকল্পটি বাংলাদেশের প্রথম হাইব্রিড বিদ্যুৎ প্রজেক্ট। যা এশিয়া মহাদেশেরও আন্তার্জাতিক পরিসরে একটি মডেল হিসেবে গন্য হবে। তাদের মতে দেশে দিন দিন শিল্প কলকারখানা গড়ে উঠায় প্রতিনিয়ত বিদ্যুৎ সমস্যাটি দেশের প্রধান সমস্যা হিসেবে দেখা দিয়েছে। বর্তমানে নবায়ন যোগ্য জালানি হতে এ বিশাল বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র প্রকল্পটির সফল বাস্তবায়ন হলে আমদানিকৃত জালানীর উপর ক্রমান্বয়ে বাংলাদেশের নির্ভরশীলতা কমে আসবে ও বিদ্যুৎ উৎপাদন সমস্যার অনেকটাই সমাধান হবে বলে মনে করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ