ঢাকা, মঙ্গলবার 25 July 2017, ১০ শ্রাবণ ১৪২8, ৩০ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

৩১ আগস্টের মধ্যে জাতীয়করণ না হলে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে তালা ঝুলবে

স্টাফ রিপোর্টার : ৩১ আগস্টের মধ্যে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জাতীয়করণ না করলে সেপ্টেম্বর মাসেই তালা ঝুলানোর মতো কর্মসূচি দেয়া হবে বলে জানিয়েছে শিক্ষক কর্মচারী ঐক্যজোট।
গতকাল সোমবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে শিক্ষক কর্মচারী ঐক্যজোট ঢাকা জেলা শাখার পক্ষ থেকে ১ ঘন্টা মানব্বন্ধন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন শিক্ষক কর্মচারী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ মোঃ সেলিম ভূঁইয়া। বক্তব্য রাখেন মোঃ জাকির হোসেন, অধ্যাপক আলমগীর হোসেন, অধ্যাপক আ. হালিম, অধ্যাপক রকিব উদ্দিন, অধ্যাপক হোসেন রানা, কাজী আরিফুজ্জামান, অধ্যাপক রাশেদুল ইসলাম, মোর্শেদুল ইসলাম, মিজানুর রহমান, এম এ তুহিন, আমজাদ হোসেন প্রমুখ।
অধ্যক্ষ সেলিম ভুইয়া বলেন, ৩১ আগস্টের মধ্যে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জাতীয়করণ না হলে সেপ্টেম্বর মাসেই তালা ঝুলানোর মমো কর্মসূচি দেয়া হবে। তিনি বলেন, অবসর সুবিধা বোর্ড ও কল্যাণ ট্রাস্টের ৪% টাকা শিক্ষকদের প্রকৃত প্রতিনিধিদের সাথে আলোচনা না করে নাম সর্বস্ব ও প্যাড সর্বস্ব শিক্ষক সমাজে অপরিচিত তথাকথিত নেতাদের সাথে আলোচনা করে কর্তন করা অযৌক্তিক, অমানবিক ও অন্যায়। আমরা এই টাকা কেটে নেয়ার সিদ্ধান্ত অবিলম্বে বাতিলের দাবি জানাই।
অধ্যক্ষ সেলিম ভূঁইয়া আরও বলেন, রাজনীতির গুণগত পরিবর্তন করতে হলে মহান জাতীয় সংসদে শিক্ষকদের জন্য আসন সংরক্ষিত থাকতে হবে। বর্তমানে রাজনৈতিক দলগুলো রাজনীতির বাইর থেকে যে সকল ব্যক্তিদের দলে টেনে নিয়ে আসেন তাদের মধ্যে এমন ব্যাক্তিও আছে যারা কেউ কেউ স্কুলের গন্ডিও পার হতে পারেনি। কিন্তু তাদের অর্থ বিত্তের প্রভাবে রাজনৈতিক দলগুলো তাদের দলে নিতে আকৃষ্ট হয়। এতে রাজনৈতিক গুণগত মান কি হয় তা আমরা সকলেই অবগত। শিক্ষকদের অর্থবিত্ত না থাকলেও সমাজে গ্রহণযোগ্যতা আছে। তারা সন্ত্রাসী ও গডফাদার তৈরি করবে না, তাই দেশের প্রয়োজনে মহান জাতীয় সংসদে ১০% আসন শিক্ষকদের জন্য সংরক্ষণের দাবি জানান।
তিনি বলেন, শিক্ষক ও শিক্ষাকে বাঁচাতে হলে এখন বেসরকারি শিক্ষক কর্মচারীদের চাকরি জাতীয়করণ ছাড়া আর কোন বিকল্প নাই। বেসরকারি শিক্ষক কর্মচারীদের চাকরি জাতীয়করণ এখন সময়ের দাবি। দেশের প্রতিটি শিক্ষক কর্মচারীদের প্রাণের দাবি চাকরি জাতীয়করণ। চাকরি জাতীয়করণ, ৫% বর্ধিত বেতন, বকেয়া বৈশাখী ভাতা প্রদান, রাজনৈতিক হয়রানি বন্ধ করা, পূর্ণাঙ্গ উৎসব ভাতা, নন এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের এমপিও ভুক্তিকরণসহ সকল দাবি অবিলম্বে পুরণের জন্য সরকারের নিকট দাবি জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ