ঢাকা, মঙ্গলবার 01 August 2017, ১৭ শ্রাবণ ১৪২8, ৭ জিলক্বদ ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

গাজীপুরে ছেলেকে গলা কেটে খুন করে পিতার আত্মহত্যা

গাজীপুর সংবাদদাতা : গাজীপুরের মানসিক ভারসাম্যহীন এক পিতা তার শিশু সন্তানকে গলা কেটে খুন করে নিজে আত্মহত্যা করেছে। গতকাল সোমবার সকালে গাজীপুর মহনগরের পেয়ারা বাগান এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলো শিশু সন্তান সাইদী হাসান (৬) ও তার পিতা রাশেদুল হাসান(৪০)। তাদের বাড়ি রংপুরের মিঠাপুকুর থানার বড় হযরতপুর গ্রামে।
পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়,গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ভোগড়া পেয়ারা বাগান এলাকার স্থানীয় আবুল হোসেনের বাড়িতে  বাবা মা ও ছেলে সাইদী হাসানকে নিয়ে ভাড়া থাকতো রাসেদুল। তার স্ত্রী থাকতো দেশের বাড়ি রংপুরে। মানাসিক রোগী রাশেদুল সোমবার সকালে তার শিশুপুত্রকে ধারালো ছুরি দিয়ে বাড়ির পাশে নালায় নিয়ে গলাকেটে হত্যা করে। এসময় স্থানীয় জনতা তাকে ধাওয়া করলে সে ঘরের ভিতর গিয়ে দরজা আটকে দেয়। এসময় স্থানীয়রা বিষয়টি পুলিশকে জানালে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে দরজা ভেঙ্গে রাশেদুলের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে। পরে পুলিশ পিতা-পুত্রের লাশ উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।
নিহতের স্বজন ও প্রতিবেশীরা জানায়, আত্মহত্যাকারী রাশেদ নিজে কয়েক বছর ধরে মানসিক রোগী ছিলেন। মাঝে মধ্যে তিনি বাড়িতে অবস্থান করলেও অনেক সময় বাইরে দিন কাটাতেন।
পুলিশ বলছে, তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে নিহতের স্বজনদের সাথে কথা বলেছেন।  কী কারণে ছেলেকে হত্যার পর বাবা আত্মহত্যা করলেন সেটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ