ঢাকা, বুধবার 02 August 2017, ১৮ শ্রাবণ ১৪২8, ৮ জিলক্বদ ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

সৌদি জোটের নিষেধাজ্ঞা এড়িয়ে আন্তর্জাতিক আকাশে উড়বে কাতারের বিমান

১ আগস্ট, আলজাজিরা, রয়টার্স : জোটের নিষেধাজ্ঞা এড়িয়ে আন্তর্জাতিক তিনটি নতুন রুট দিয়ে চলাচল করবে কাতারের বিমান। আগস্টের মধ্যে মাঝামাঝি সময়ের মধ্যেই এই সুফল পাবে তারা। গত সোমবার জাতিসংঘের সঙ্গে রুদ্ধদ্বার এক বৈঠকের পর কাতারের জন্য বিকল্প পথের সিদ্ধান্ত আসে। গতকাল মঙ্গলবার কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যমের এক প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা যায়। ৫ জুন সন্ত্রাসবাদে সমর্থনের অভিযোগ এনে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করে সৌদি আরব, বাহরাইন, সংয্ক্তু আরব আমিরাত ও মিসরসহ কয়েকটি দেশ। একইসঙ্গে অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞার অংশ হিসেবে বিমান যোগাযোগ ও আকাশপথ বন্ধ করে দেয় সৌদি জোট।
এরপর এতে আন্তর্জাতিক সিভিল এভিয়েশন সংস্থার প্রতি হস্তক্ষেপের আহ্বান জানায় কাতার। আকাশপথ বন্ধ করে দেওয়ায় কাতার এয়ারওয়েজকে লম্বা পথ পাড়ি দিতে হয়। এতে করে খরচ ও জ্বালানিও বেশি ব্যয় করতে হয়।
চলতি মাসের শুরুতেই বিকল্প পথগুলোর প্রস্তাব দিয়েছিলো কাতার। সেই বিষয় নিয়ে জাতিসংঘের এভিয়েশন এজেন্সির সঙ্গে ওই বৈঠকে আলোচনা হয়। তবে এখন কাতারি বিমানগুলোর জন্য পথ খুলে দেওয়া হয়নি। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা দেওয়া সাক্ষাতকারে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন বলেন, ‘এক সপ্তাহের মধ্যেই নতুন রুট পেয়ে যাওয়ার কথা কাতারের।’ গত সোমবার আইসিএও তার সব সদস্য দেশগুলোকে ১৯৪৪ শিকাগো কনভেনশন চুক্তি মেনে চলার আহ্বান জানায়। কাতারের পরিবহন মন্ত্রী জসিম বিন সাইফ আল সুলাতি বলেন, দোহা চায় সবদেশই যেন শিকাগো চুক্তির প্রতি সম্মান দেখায়। তিনি বলেন, ‘সংস্থাটি সবাইকে নিয়ম মেনে চলার কথা বলেছেন কারণ আন্তর্জাতিক নিরাপত্তার জন্য এটা খুবই জরুরি।’ তবে নিয়মগুলো প্রয়োগের ক্ষমতা আইসিএওর নেই বলে দাবি করেন অ্যাভিয়েশন বিশেষজ্ঞ কিথ ম্যাকি। তিনি বলেন, আইসিএও সংশ্লিষ্ট দেশগুলোকে চাপ প্রয়োগের ক্ষমতা রাখে না। তাদেরকে এটার জন্য অনুমতি নিতে হবে। আর এটা পুরোপুরি রাজনৈতিক সংকট।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ